kalerkantho


গৃহশিক্ষক আটক

শিবচরে দ্বিতীয় শ্রেণির ছাত্রীকে যৌন নির্যাতনের অভিযোগ

মাদারীপুর প্রতিনিধি    

১৭ নভেম্বর, ২০১৭ ১৬:২২



শিবচরে দ্বিতীয় শ্রেণির ছাত্রীকে যৌন নির্যাতনের অভিযোগ

মাদারীপুরের শিবচরে দ্বিতীয় শ্রেণির এক স্কুলছাত্রী (৮) যৌন নির্যাতনের শিকার হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ  অভিযোগে সুজন মোল্লা (২০) নামের গৃহশিক্ষককে আটক করেছে পুলিশ।

ঘটনার শিকার ছাত্রীকে মাদারীপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

পুলিশ ও পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, শিবচর উপজেলার উমেদপুর ইউনিয়নের মোহনপুর গ্রামের এক ব্যবসায়ীর আট বছরের মেয়ে কাবিলপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দ্বিতীয়  শ্রেণির ছাত্রীকে বাড়িতে গিয়ে প্রাইভেট পড়াতেন পার্শ্ববর্তী  কাবিলপুর গ্রামের ধলু মোল্লার ছেলে সুজন মোল্লা।

প্রতিদিনের মতো গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে সুজন ওই ছাত্রীকে পড়াতে তার বাড়ি যান। এ সময় বাড়িতে কেউ না থাকার সুযোগে সুজন ছাত্রীর মুখ চেপে ধরে তাকে হত্যার ভয় দেখিয়ে যৌন নির্যাতন করেন। ঘরের মধ্যে কোনো সাড়া-শব্দ না পেয়ে ছাত্রীর দাদি হঠাৎ ঘরে প্রবেশ করেন। তিনি গৃহশিক্ষক সুজনকে আপত্তিকর অবস্থায় দেখে চিৎকার দিলে সুজন দৌড়ে পালিয়ে যান। বাড়ির লোকজন স্কুলছাত্রীকে উদ্ধার করে প্রথমে শিবচর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য মাদারীপুর সদর হাসপাতালে পাঠায়।

স্কুলছাত্রীর বাবা বলেন, "লম্পট সুজন আমার মেয়েকে মেরে ফেলার ভয় দেখিয়ে যৌন নির্যাতন করেছে। আমি ওর কঠিন শাস্তি চাই।

"

শিবচর থানার এসআই আবুল কালাম আজাদ বলেন, "বৃহস্পতিবার রাতে সুজনকে তার বাড়ি থেকে আটক করা হয়েছে। আটক গৃহশিক্ষক সুজন শিবচর নুরুল আমিন বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের রাষ্ট্রবিজ্ঞান অনার্স দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র। তার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। "  

 


মন্তব্য