kalerkantho


মামলা তুলে না নেওয়ার জের

রায়পুরে ধর্ষিতার বাবাকে পিটিয়ে হাসপাতালে

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি    

২৩ অক্টোবর, ২০১৭ ১৯:৫১



রায়পুরে ধর্ষিতার বাবাকে পিটিয়ে হাসপাতালে

লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে মামলা তুলে না নেওয়ায় ধর্ষিত কিশোরীর বাবাকে বেদম পিটিয়ে আহত করার অভিযোগ উঠেছে ধর্ষক ও তার ভাইয়ের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় আজ সোমবার দুপুরে আহত ব্যক্তি থানায় পাঁচজনের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ করেছেন।

তিনি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন।

গতকাল রবিবার এ হামলার ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও আহত ব্যক্তি জানান, ২০১৫ সালের ২৩ নভেম্বর উপজেলার দক্ষিণ কেরোয়া গ্রামের কিশোরীকে ধর্ষণ করে একই গ্রামের সদু মিয়ার ছেলে নূর আলম। ওই ঘটনায় কিশোরীর বাবা অভিযুক্ত নূর আলমের বিরুদ্ধে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। ওই অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে থানায় মামলা দায়ের হয়।

পরে আসামি নূর আলমকে অভিযুক্ত করে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা। পলাতক থাকার পর নূর আলম জেলা আদালতে আত্মসমর্পণ করেন। সাত মাস কারাভোগের পর উচ্চ আদালত থেকে সম্প্রতি জামিনে বের হন তিনি। এরপর থেকে মামলা তুলে নিতে হুমকি দেন নূর আলম ও তার পরিবারের সদস্যরা।

গতকাল  রবিবার দুপুরে মামলার বাদীর সঙ্গে নূর আলম ও তার ভাই বেলায়েত হোসেনের বাকবিতণ্ডা হয়। একপর্যায়ে তারা বাদীকে পিটিয়ে আহত করেন। ঘটনার পর অভিযুক্ত নূর আলম ও তার ভাই বেলায়েত পলাতক। তাদের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করলেও বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

এ ব্যাপারে রায়পুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মোহাম্মদ সোলায়মান বলেন, "ঘটনাটি তদন্ত করে প্রয়োজনীয় আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে। " 


মন্তব্য