kalerkantho


কুমিল্লায় স্ত্রীর হত্যার দায় স্বীকার করলো পাষণ্ড স্বামী

নিজস্ব প্রতিবেদক, কুমিল্লা   

২০ মার্চ, ২০১৭ ১৯:১৪



কুমিল্লায় স্ত্রীর হত্যার দায় স্বীকার করলো পাষণ্ড স্বামী

কুমিল্লার দেবিদ্বারে পাঁচ সন্তানের জননীর মরদেহ উদ্ধারের ১৬ ঘন্টা পর হত্যার রহস্য উদঘাটনসহ হত্যাকারী স্বামীকে আটক করেতে সক্ষম হয়েছে পুলিশ গতকাল রবিবার সকালে উপজেলার ভিংলাবাড়ি গ্রামের ঘরের পিছন থেকে হাজেরা বেগম (৪৮) এর মরদেহ উদ্ধারের পর ঘটনার সাথে জড়িত থাকার সন্দেহে তার স্বামী মোঃ শাহ আলমকে (৫৪) আটক করে পুলিশ।  

নিহতের ভাই জব্বার মিয়ার দায়ের করা মামলার ভিত্তিতে পুলিশ শাহআলমকে জিজ্ঞাসাবাদ করার এক পর্যায়ে খুনের দায় স্বীকার করে পাষণ্ড স্বামী শাহআলম। আজ সোমবার খুনের দায় স্বীকার করে ১৬৪ ধারায় বিজ্ঞ আদালতে জবানবন্দি দেয় হত্যাকারী শাহআলম।

দেবিদ্বার থানার ওসি মিজানুর রহমান জানান, নিহত হাজেরা ও শাহআলম দম্পত্তি প্রায় ৩০ বছর পূর্বে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়। দাম্পত্য জীবনে তারা তিন মেয়ে ও দুই ছেলের জনক-জননী। প্রায় প্রতিদিনই তুচ্ছ বিষয়ে স্বামী-স্ত্রী মধ্যে মনমালিন্য সৃষ্টি হতো। ঘটনার দিন গত শনিবার দুজনের মধ্যে মনোমানিল্যে হয়। পরে রাতে দুজনে একই ঘরে ঘুমিয়ে পড়ে।  

এদিকে গভীর রাতে শাহআলম তার স্ত্রী হাজেরাকে শ্বাসরূদ্ধ করে হত্যার পর মরদেহ ঘরের পিছনে ফেলে রাখে। ঘাতক স্বামীকে আদালতে হাজির করার পর খুনের দায় স্বীকার করায় আদালত কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন বলে জানান ওসি।


মন্তব্য