kalerkantho


লক্ষ্মীপুরে প্রধানমন্ত্রীকে ৭ মার্চের ভাষণ শোনানোর বায়না শিশু যিয়ানের

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি   

৯ মার্চ, ২০১৭ ১৯:৩৭



লক্ষ্মীপুরে প্রধানমন্ত্রীকে ৭ মার্চের ভাষণ শোনানোর বায়না শিশু যিয়ানের

জনতার উত্তাল সমুদ্রে দাঁড়িয়ে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ৭ মার্চ যে ভাষণ দিয়েছেন; সেই ভাষণ প্রজন্ম থেকে প্রজন্মান্তরে ছড়িয়ে পড়েছে। শিশু মনেও তার দাগ কেটেছে।

লক্ষ্মীপুরের সাড়ে চার বছরের শিশু আহমেদ শেহজাদ যিয়ান রপ্ত করেছে দীর্ঘ সেই ভাষণ। ১৪ মার্চ প্রধানমন্ত্রী লক্ষ্মীপুর আসছেন। তাঁর জনসভায় লাখো মানুষের সামনে মুক্তির সংগ্রামের ঐতিহাসিক সেই ভাষণ দিতে চায় শিশু যিয়ান।

মাত্র তিন বছর ৮ মাস বয়সে ভাষণ শেখে যিয়ান। এরপর থেকে তার বায়না, প্রধানমন্ত্রীকে তার ভাষণ শুনানোর। লক্ষ্মীপুরে প্রধানমন্ত্রীর আগমনে স্বপ্ন সফল হতে যাচ্ছে- এমনটাই ভাবছে শিশু যিয়ান।
সে স্বপ্নে বিভোর। কল্পনায় হারিয়ে যায় লাখ-লাখ জনতার সামনে। সিঁড়ি বেড়ে মঞ্চে উঠবে।

কানে বাজবে জয় বাংলা স্লোগান। হাত নেড়ে জানান দেবে, আমি আছি তোমাদের পাশে; থাকবো। করতালি দিয়ে স্বাগত জানাবে সবাই। শুরু করবে ভাষণ- ভাইয়েরা আমার...।
প্রধানমন্ত্রীই পারেন ছোট্ট যিয়ানের ভাষণ শুনে কচি মনের স্বপ্ন পূরণ করতে। আগামী প্রজন্মের শিশুদের মাঝে বঙ্গবন্ধুর দেশ প্রেমের চেতনায় উদ্বুদ্ধ করতে।
আহমেদ শেহজাদ যিয়ান লক্ষ্মীপুর কাকলি শিশু অঙ্গনের প্লে (প্রাক প্রাথমিক) শ্রেণির ছাত্র। সে কমলনগর উপজেলার চর ফলকন গ্রামের স্থানীয় সংবাদ কর্মী সাজ্জাদুর রহমান ও আফরোজ জাহান নিরু দম্পতির ছেলে। সম্প্রতি একটি অনুষ্ঠানে যিয়ানের ৭ মার্চের বক্তব্য শুনে লক্ষ্মীপুর-৩ (সদর) আসনের এমপি একেএম শাহজাহান কামাল ও জেলা প্রশাসক (ডিসি) মো. জিল্লুর রহমান চৌধুরীসহ প্রশাসনের শীর্ষ কর্মকর্তারা মুগ্ধ হয়েছেন।
যিয়ানের মা আফরোজ জাহান নিরু বলেন, সাজ্জাদ ও আমার আগ্রহে শুনে-শুনে বঙ্গবন্ধুর ভাষণ শিখেছে। তার ইচ্ছা প্রধানমন্ত্রীকে ভাষণ শুনানোর। প্রধানমন্ত্রী লক্ষ্মীপুর আগমন কথা শুনার পর থেকে যিয়ান আরও বেশি আগ্রহী হয়ে উঠে। দৈনিক কয়েকবার অনুশীলন করছে ওই ভাষণ। মা হয়ে প্রধানমন্ত্রীর কাছে আমার অনুরোধ ছোট্ট যিয়ানের লালিত স্বপ্ন বাস্তবায়নের সুযোগ দিন।

 


মন্তব্য