kalerkantho


স্বাক্ষর না করায় লক্ষ্মীপুরে চেয়ারম্যানের হুমকি

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি   

৭ মার্চ, ২০১৭ ২০:০৬



স্বাক্ষর না করায় লক্ষ্মীপুরে চেয়ারম্যানের হুমকি

লক্ষ্মীপুরের রায়পুর উপজেলার দক্ষিণ চর আবাবিল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি নাছির উদ্দিন বেপারীর বিরুদ্ধে সংরক্ষিত ওয়ার্ডের সদস্য ও তার স্বামীকে হুমকি দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে।  

চেয়ারম্যান কয়েকটি উন্নয়নমূলক কাজ না করেই ইউনিয়নের ১, ২ ও ৩ নম্বর  সংরক্ষিত ওয়ার্ডের সদস্য মরিয়ম বেগমকে ব্যাংকের চেকে স্বাক্ষর করতে বলেন। স্বাক্ষর না করায় তিনি ক্ষিপ্ত হয়ে ‘৫ বছরেরও কোন কাজ দেওয়া হবে না’ বলে অব্যাহত হুমকি দেওয়ার অভিযোগ মরিয়মের। এর আগে একটি রাস্তায় ৭২ জন শ্রমিক কাজ করেছে বলে ১৬ টি খালি বিল-ভাউচারে স্বাক্ষর করিয়ে নেওয়া হয়। এসব ঘটনার বিচার চেয়ে আজ মঙ্গলবার মরিয়মের স্বামী লক্ষ্মীপুর জজ কোর্টের আইনজীবী সহকারী ইউছুফ আলী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে লিখিত অভিযোগ করেছেন।

অভিযোগে বলা হয়েছে, ইউনিয়নের ২ নম্বর ওয়ার্ডের শাহজাহান মেম্বারের বাড়ির ইটের সলিং, কাঠের পুলের পাশে প্যালাসাইটিং ও ১ নম্বর ওয়ার্ডের বেড়িখালের রাস্তায় ৪০ দিনের মাটি কাটার কর্মসূচীর বিলে স্বাক্ষর করার জন্য মরিয়ম বেগমকে চাপ দেওয়া হচ্ছে। এসব প্রকল্পে কোন উন্নয়ন কাজ কাজ হয়নি। এছাড়াও মরিয়মকে ভুল বুঝিয়ে ১ নম্বর ওয়ার্ডের বেড়ির খালের রাস্তায় ৭২ জন শ্রমিক কাজ করেছে বলে ১৬ টি খালি বিল-ভাউচারে স্বাক্ষর করিয়ে নেওয়া হয়। চেয়ারম্যান ও তার ছেলে স্থানীয় যুবলীগ নেতা ফারুক হোসেন গত কয়েকদিন ধরে মরিয়ম ও তার স্বামীকে ভয়ভীতি দেখাচ্ছে।

দক্ষিণ চর আবাবিল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নাছির উদ্দিন বেপারী বলেন, আমার ছেলে সাথে ভুল বুঝাবোঝির কারনে মহিলা সদস্যর স্বামী লিখিত অভিযোগ করেছেন। প্রকল্পগুলোর একটি টাকাও উত্তোলন করা হয়নি।

এ সংকট কেটে যাবে।

রায়পুর উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা সাইফুল ইসলাম বলেন, কাজ না বিল উত্তোলনের সুযোগ নেই। এ বিষয়ে খোঁজ-খবর নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।


মন্তব্য