kalerkantho


মানববন্ধন ও স্মারকলিপি প্রদান

রোদেলার অস্বাভাবিক মৃত্যুতে বিচার বিভাগীয় তদন্ত দাবি

নিজস্ব প্রতিবেদক, ফরিদপুর    

২ মার্চ, ২০১৭ ১২:৪৭



রোদেলার অস্বাভাবিক মৃত্যুতে বিচার বিভাগীয় তদন্ত দাবি

ফরিদপুর সরকারি সারদা সুন্দরী মহিলা কলেজের ইংরেজি (সম্মান) প্রথম বর্ষের মেধাবী ছাত্রী সাজিয়া আফরিন রোদেলার শ্বশুরবাড়িতে অস্বাভাবিক মৃত্যুর ঘটনায় বিচার বিভাগীয় তদন্ত দাবি করেছেন ওই কলেজের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা।

আজ বৃহস্পতিবার সকাল ১০টা থেকে সকাল সাড়ে ১০টা পর্যন্ত কলেজের সামনের অম্বিকা রোডে আধাঘণ্টার মানববন্ধন কর্মসূচিতে কয়েক শ শিক্ষার্থী ও শিক্ষক অংশ নেন।

এ সময় বক্তব্য দেন কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ সৈয়দ তাবিদ জাহিদুল ইসলাম, অধ্যাপক হাসিনা বানু, তালুকদার আনিসুল ইসলাম, রাজা রাশেদ আলমগীর, খালিদুজ্জামান মিঠু, রোদেলার মা রোমানা খানম প্রমুখ। বক্তারা এ ঘটনাকে মর্মান্তিক ও দুঃখজনক উল্লেখ করে ঘটনার বিচার বিভাগীয় তদন্তের দাবি জানান। রোমানা খানম তাঁর মেয়ে রোদেলার হত্যাকারীদের ফাঁসির দাবি করেন।

মানববন্ধন কর্মসূচি শেষে কয়েক শ শিক্ষার্থী মিছিল সহকারে জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপারের কাছে একটি স্মারকলিপি প্রদান করেন। স্মারকলিপি গ্রহণ করে জেলা প্রশাসক বেগম উম্মে সালমা তানজিয়া ও পুলিশ সুপার সুভাষ চন্দ্র সাহা পিপিএম ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত ও দোষীদের আইনের আওতায় আনার প্রতিশ্রুতি দেন।

উল্লেখ্য, গত ১৩ জানুয়ারি ফরিদপুর শহরের গোয়ালচামটের নতুন বাজার এলাকার মমিনুর রহমান সেন্টুর  ছেলে আসাদুল সোহানের (২৮) সঙ্গে বিয়ে হয় রোদেলার। এরপর গত সোমবার দিবাগত রাত ১১টার দিকে ফরিদপুর মেডিক্যাল কলেজ  হাসপাতালে রোদেলকে মৃত অবস্থায় নিয়ে আসা হয়। তাকে স্বামী, শ্বাশুড়ি ও ননদ মিলে হত্যা করেছে বলে নিহত রোদেলার পরিবার অভিযোগ করেছে।
 


মন্তব্য