kalerkantho


মেহেরপুরে পুলিশ কনস্টেবলের আত্মহত্যা

মেহেরপুর প্রতিনিধি   

১৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ১৭:১২



মেহেরপুরে পুলিশ কনস্টেবলের আত্মহত্যা

মেহেরপুরে পুলিশ ক্যাম্পে কর্মরত কামাল হোসেন চৌধুরী নামের এক কনস্টেবল ঘুমের ওষুধ সেবন করে আত্মহত্যা করেছে। স্বজনদের পক্ষ থেকে ছুটি না পেয়ে হতাশায় আত্মহত্যা করেছে এমন দাবি করলেও পুলিশ সুপার বলেন ছুটির জন্য সে কোনো আবেদন করেননি।  

আজ বৃহস্পতিবার সকালে কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়েছে। নিহত পুলিশ কনস্টেবল কামাল হোসেন চৌধুরীর (৪৫) বাড়ী কুষ্টিয়া জেলার মিরপুরে। তিনি মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার এলাঙ্গী পুলিশ ক্যাম্পে কর্মরত ছিলেন।  

মেহেরপুর পুলিশ লাইনে কর্মরত উপপরিদর্শক (এসআই) আনোয়ার হোসেন বলেন, 'কামাল গতকাল বুধবার সন্ধ্যায় শারীরিক অসুস্থতা বোধ করলে এলাঙ্গী ক্যাম্প থেকে পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে আসে। সেখানে থেকে তাকে চিকিৎসার জন্য সন্ধ্যায় মেহেরপুরে হাসপাতালে চিকিৎসকের কাছে নেওয়া হয়। চিকিৎসক তাকে পরীক্ষা নিরীক্ষা করে কোন সমস্যা নাই জানায়। রাত হয়ে যাওয়ায় তাকে ক্যাম্পে যেতে না বলে পুলিশ লাইনের ব্যারাকে থাকতে বলা হয়। এরপর সে কাউকে না জানিয়ে কুষ্টিয়ার মিরপুরে নিজ বাড়ি চলে যায়। সকালে শুনি সে ঘুমের ওষুধ খেয়ে আত্মহত্যা করেছেন।

কামালের বোন সীমা চৌধুরী জানান, 'কামাল দীর্ঘদিন থেকে মেরুদন্ডের ব্যথায় ভুগছিলেন। উন্নত চিকিৎসার জন্য ভারতে যাওয়ার জন্য ছুটি চেয়েছিলেন তিনি। কিন্তু ছুটি না মেলায় হতাশাগ্রস্থ হয়ে ঘুমের ওষুধ খেয়ে আত্মহত্যা করেছেন। ' 

মেহেরপুরের পুলিশ সুপার আনিছুর রহমান কামালের পরিবারের অভিযোগকে মিথ্যা উল্লেখ করে জানান, 'সে কোনো ছুটির আবেদন করেননি। তার গড় হাজিরা ছিল। সে আমাদের কিছু না জানিয়ে চলে গেছে। ' 


মন্তব্য