kalerkantho


সৌদিপ্রবাসী সেলিমের সন্ধান মেলেনি এক মাসেও

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ১৬:২০



সৌদিপ্রবাসী সেলিমের সন্ধান মেলেনি এক মাসেও

নিখোঁজের প্রায় এক মাস অতিবাহিত হলেও এখনো সন্ধান মেলেনি সৌদি আরবের রিয়াদে কর্মরত গাড়িচালক মো. সেলিমের। সেলিম ঢাকা জেলার দোহার উপজেলার লক্ষ্মীপ্রসাদ গ্রামের মৃত বনি আমিন মোল্লার ছেলে। পরিবারের দাবি, গত ৩০ ডিসেম্বর থেকে সৌদি আরবে নিখোঁজ রয়েছে সেলিম। এ ঘটনায় বাংলাদেশে অবস্থিত সৌদি দূতাবাসে লিখিত অভিযোগও করেছেন তারা।

জানা গেছে, মো. সেলিম ১৯৯২ সালে কাজের সন্ধানে  দেশ থেকে সৌদি আরবে পাড়ি জমান। শুরু থেকেই গাড়িচালক হিসেবে সে রিয়াদে ট্রাক্সিক্যাব কম্পানির গাড়ি চালাতো। সর্বশেষ গত দুই বছর যাবৎ রিয়াদের শেরিকা আল মেসুয়ার নামে একটি ট্রাক্সিক্যাব কম্পানিতে কর্মরত থাকা অবস্থায় গত ৩০ ডিসেম্বর সে গাড়ি নিয়ে বের হলেও আর ফিরে আসেনি। সে যে রুমে থাকত সে রুমটিও তালাবদ্ধ অবস্থায় রয়েছে বলে জানা যায়।

সেলিমের গ্রামের বাড়িতে গিয়ে জানা যায়, তার পরিবারে স্ত্রী, দুই সন্তান, মা ও বড় ভাই রয়েছে। পরিবারের সদস্যরা প্রতিনিয়ত তার ফিরে আসার জন্য অপেক্ষার প্রহর গুনছেন। সেলিমের স্ত্রী জুবায়দা খানম জানায়, গত ২৯ ডিসেম্বর রাতে তার সাথে কথা হয়েছিল। তারপর থেকে তার ব্যবহৃত মোবাইল ফোনে ফোন দিলে ২/৩ দিন পর্যন্ত রিং হয়েছে কিন্তু তারপর থেকে মোবাইলটি বন্ধ রয়েছে। সৌদি আরবের রিয়াদে কর্মরত দোহার উপজেলার অনেকের সাথে যোগাযোগ করা হলে তারাও কোন সংবাদ দিতে পারছে না।

সেলিমের বড় ভাই কামাল আহমেদ জানায়, সৌদি আরবে যাওয়ার পর থেকেই ২/৩ বছর পরপর সে ছুটিতে বাড়িতে আসতো। কয়েকমাস পরই তার দেশে আসার কথা ছিল। দীর্ঘ চাকরি জীবনে এমন অস্বাভাবিক ঘটনা কখনোই ঘটেনি। আমার নিখোঁজ ভাইয়ের সংবাদ পাওয়ার জন্য বাংলাদেশে অবস্থিত সৌদি দূতাবাসে যোগাযোগ করে সেখানে লিখিতভাবে বিষয়টি জানিয়েছি। সে যে কম্পানিতে কর্মরত ছিল তার মালিকের সাথেও কথা হয়েছে। তারা জানিয়েছেন নিখোঁজের বিষয়টি নিয়ে তারাও খুব উদ্বিগ্ন। এ ব্যাপারে সেখানেও আইনগতভাবে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।


মন্তব্য