kalerkantho


খুলনা-কলকাতা ট্রেন চলাচল শীঘ্রই : হর্ষ বর্ধন

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১১ জানুয়ারি, ২০১৭ ১৭:৪০



খুলনা-কলকাতা ট্রেন চলাচল শীঘ্রই : হর্ষ বর্ধন

খুলনা-কলকাতা রুটে শীঘ্রই ট্রেন চলাচল শুরু হবে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশে নিযুক্ত ভারতের হাইকমিশনার হর্ষ বর্ধন শ্রিংলা। আজ বুধবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে নড়াইলের তুলারামপুরে ভারতের রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জির প্রয়াত স্ত্রী শুভ্রা মুখার্জির মামাবাড়িতে স্কুল ও মন্দিরে ল্যাপটপ ও এয়ারকন্ডিশন বিতরণকালে সাংবাদিকদের তিনি এ তথ্য জানান। এ সময় তিনি বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে বিদ্যমান সম্পর্ক অটুট থাকবে বলেও মন্তব্য করেন। শুভ্রা মুখার্জি প্রি-ক্যাডেট স্কুলে চারটি ল্যাপটপ এবং মন্দিরে দুটি এসি প্রদান করেন হর্ষ বর্ধন। তিনি মুখার্জি ফাউন্ডেশনের জন্য নির্ধারিত জায়গাও পরিদর্শন করেন। পরে ভারতীয় হাইকমিশনার নড়াইল রামকৃষ্ণ আশ্রম ও রামকৃষ্ণ মিশনে যান এবং সীমানা প্রাচীরের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন কাজের উদ্বোধন করেন।

এ উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন রামকৃষ্ণ মঠ ও রামকৃষ্ণ মিশন, বেলুরমঠ, হাওড়া, পশ্চিমবঙ্গ ভারতের সহ-সাধারণ সম্পাদক ও ট্রাস্ট্রি শ্রীমৎ স্বামী বোধসরানন্দজী মহারাজ। এছাড়া ভারত সরকারের সহযোগিতায় নির্মিত নড়াইল সরকারি ভিক্টোরিয়া কলেজের ‘বাংলাদেশ-ভারত মৈত্রী ছাত্রীনিবাস’ও পরিদর্শন করেন ভারতীয় হাইকমিশনার। এ সময় নড়াইল জেলা প্রশাসক হেলাল মাহমুদ শরীফ, জেলা পরিষদ প্রশাসক ও জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট সুবাস চন্দ্র বোস, পুলিশ সুপার সরদার রকিবুল ইসলাম, শুভ্রা মুখার্জির ভাই কানাই লাল ঘোষ, মামাতো ভাই কার্তিক ঘোষসহ বিভিন্ন শ্রেণীপেশার মানুষ উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, ভারতের রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জির স্ত্রী শুভ্রা মুখার্জির বাবার বাড়ি নড়াইল সদরের ভদ্রবিলা গ্রামে এবং মামাবাড়ি তুলারামপুর গ্রামে। শুভ্রা মুখার্জির শৈশব কেটেছে এই দুটি গ্রামে। ২০১৩ সালের ৫ মার্চ নড়াইলের জামাইবাবু ভারতের রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জিকে নিয়ে নড়াইলে আসেন শুভ্রা মুখার্জি। ২০১৫ সালের ১৮ আগস্ট ভারতে পরলোকগমন করেন শুভ্রা মুর্খাজি।

 


মন্তব্য