kalerkantho

সোমবার । ৫ ডিসেম্বর ২০১৬। ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৪ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


গোপালগঞ্জে বিজয়া দশমীর নৌকা বাইচ

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১২ অক্টোবর, ২০১৬ ১২:৫০



গোপালগঞ্জে বিজয়া দশমীর নৌকা বাইচ

গোপালগঞ্জের ৪ স্থানের আবহমান বাংলার ঐতিহ্যবাহী নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতা দুর্গাপূজার বিজয়াকে আরো আনন্দমুখর করে তুলেছিল। নৌকা বাইচকে কেন্দ্র করে কোটালীপাড়া উপজেলার ঘাঘর গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার সাতপাড়, কাশিয়ানী উপজেলার বাথানডাঙ্গা ও মুকসুদপুর উপজেলার জালিরপাড়ে লাখ লাখ মানুষের মিলন মেলা বসেছিল।

এ যেন শারদীয় দুর্গোৎসবের পর আরো একটি উৎসব। মঙ্গলবার ঘাঘর, সাতপাড়, বাথানডাঙ্গা, আজ বুধবার জলিরপাড়ে দুর্গপূজার দশমী উপলক্ষে নৌকা বাইচ অনুষ্ঠিত হয়েছে।
 
বর্ষার বিদায়লগ্নে শরতের মনোরম বিকেলে গোপালগঞ্জ, মাদারীপুর, ফরিদপুর, বরিশাল জেলার বিভিন্ন বয়সের লাখ লাখ মানুষ নৌকা বাইচ উৎসবে মেতে নির্মল আনন্দ উপভোগ করেছেন। বিজয়া দশমীর সর্ববৃহৎ নৌকাবাইচ প্রতিযোগিতা মঙ্গলবার কোটালীপাড়ার ঘাঘর নদীতে অনুষ্ঠিত হয়েছে। ঘাঘর নদীর জাঠিয়ার মোড় থেকে ঘাঘর কান্দা পর্যন্ত দুই কিলোমিটার পর্যন্ত এ নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। ঐতিহ্যবাহী এ নৌকা বাইচ উপভোগ করতে বিভিন্ন বয়সের লক্ষাধিক নারী-পুরুষ নদীর দুই পাড়ে সমবেত হন। ১৫০ বছর ধরে এই বাইচ অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে।

এ নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতায় গোপালগঞ্জ, মাদারীপুর, পিরোজপুর, নড়াইল, বরিশাল জেলার প্রত্যন্ত অঞ্চল থেকে শতাধিক সরেঙ্গা, ছিপ, কোষা, চিলাকাটা, জয়নগর বাচারী নৌকা অংশ নেয়। নান্দনিক এ নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতা বিপুল আড়ম্বরপূর্ণ অনুষ্ঠানের মধ্যে দিয়ে দুপুর ২টা থেকে শুরু হয়ে চলে সন্ধ্যা পর্যন্ত। প্রতিযোগিতায় প্রধান আকর্ষণ ছিল মহিলাদের বাচারী নৌকা। মহিলাদের পাঁচটি বাচারী নৌকা এ প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করে। কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা ও এফবিসিসিআই এর সাবেক সভাপতি কাজী আকরাম উদ্দিন আহমেদ প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করেন।

 


মন্তব্য