kalerkantho

শনিবার । ৩ ডিসেম্বর ২০১৬। ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ২ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


সাড়ে ৫ কোটি টাকা আত্মসাতের মামলায় সওজ কর্মচারী গ্রেপ্তার

নিজস্ব প্রতিবেদক, কুমিল্লা   

৩ অক্টোবর, ২০১৬ ১৭:৩৭



সাড়ে ৫ কোটি টাকা আত্মসাতের মামলায় সওজ কর্মচারী গ্রেপ্তার

ঠিকাদারদের জামানতের তিনটি চেক জাল-জালিয়াতি করে পাঁচ কোটি ৫০ লাখ টাকা আত্মসাতের মামলায় আবদুল আউয়াল নামে সড়ক ও জনপথ (সওজ) এর এক কর্মচারীকে গ্রেপ্তার করেছে কুমিল্লা দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। আজ সোমবার দুপুরে তাকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা সদর এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়।


 
গ্রেপ্তারকৃত আবদুল আউয়াল কুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলার নবীপুর গ্রামের হাজী সুলতান আহমদের ছেলে।
 
জানা যায়, সওজ-ব্রাহ্মণবাড়িয়া কার্যালয়ের কম্পিউটার অপারেটর আবদুল আউয়াল সওজ এর ঠিকাদারদের জামানতের তিনটি চেক জাল-জালিয়াতির মাধ্যমে ৯ হাজার ৪০০ টাকার চেকের স্থলে ২ কোটি ১১ হাজার ৪৬০ টাকার স্থলে ৩ কোটি ও ৫ হাজার ৯৩০ টাকার স্থলে ৫০ লাখ অর্থাৎ ২৬ হাজার ৭৯০ টাকার চেকের স্থলে ৫ কোটি ৫০ লাখ টাকার চেক লিখে টাকা উত্তোলন করে আত্মসাৎ করেন। এ বিষয়টি নজরে আসার পর সওজ-ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নির্বাহী প্রকৌশলী আবু এহতেশাম রাশেদ বাদী হয়ে গত ২০ সেপ্টেম্বর ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর থানায় ওই কর্মচারীর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। দুদক কুমিল্লা জেলা সমন্বিত কার্যালয়ের উপ-পরিচালক আবুল কালাম আজাদ মামলাটি তদন্তের দায়িত্ব পান।
 
এ বিষয়টি নিশ্চিত করে দুদক কুমিল্লার উপ-পরিচালক আবুল কালাম আজাদ বলেন, চেক জাল-জালিয়াতির মাধ্যমে সাড়ে ৫ কোটি টাকা আত্মসাতের মামলায় সওজ কর্মচারী আবদুল আউয়ালকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। দুপুরে তাকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।


মন্তব্য