kalerkantho

রবিবার । ১১ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


ভোলায় সেফটিকে ট্যাংকের ভেতর দুই শ্রমিকের মৃত্যু

ভোলা প্রতিনিধি    

১ অক্টোবর, ২০১৬ ১৬:৫৩



ভোলায় সেফটিকে ট্যাংকের ভেতর দুই শ্রমিকের মৃত্যু

ভোলায় পানির সেফটিক ট্যাংকের ভেতর শ্বাসরুদ্ধ হয়ে দুই শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। এরা হলেন সদর উপজেলার চর সামাইয়া ইউনিয়নের আ. সোবাহানের ছেলে রাজিব (২২) ও দৌলতখান উপজেলার চর খলিফা ইউনিয়নের দিদারুল্লাহ গ্রামের আনসার মোল্লার ছেলে আল-আমিন (২০)।

তারা দুজনই রাজমিস্ত্রি ছিলেন।

আজ শনিবার সকালে ট্যাংকের ভেতরে ঢুকে তা পরিষ্কার করতে গিয়ে মিথেন গ্যাসে শ্বাসরুদ্ধ হয়ে মৃত্যু হয় তাদের।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, ভোলা পৌরসভার ৩ নম্বর ওয়ার্ডের খন্দকার বাড়ির পাশে গনি রাজের বাড়িতে গত প্রায় দুই মাস ধরে রাজমিস্ত্রিসহ ১৫-১৬ জন শ্রমিক নির্মাণ কাজ করছিলেন। আজ শনিবার সকাল ১০টার দিকে দুজন রাজমিস্ত্রি রাজিব ও আল-আমিন নির্মাণাধীন বাড়ির একতলা ভবনের নিচতলায় সেফটিক ট্যাংক পরিষ্কার করতে এর ভেতরে ঢোকেন। দীর্ঘ সময় পার হলেও তারা ট্যাংকের ভেতর থেকে না আসায় অন্য শ্রমিকরা তাদেরকে ডাকতে গিয়ে রাজিব ও আল-আমিন ট্যাংকের ভেতরে প্রায় মৃত অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখেন। পরে শ্রমিকরা তাদেরকে উদ্ধার করে ভোলা সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদেরকে মৃত ঘোষণা করেন।

এ ব্যাপারে সদর হাসপাতালের চিকিৎসা কর্মকর্তা ডা. তৌহিদুর রহমান বলেন, "তাদেরকে মৃত অবস্থায়ই হাসপাতালে আনা হয়েছে। " তিনি বলেন, "সেফটিক ট্যাংকটি দীর্ঘদিন বন্ধ থাকায় ভেতরে মিথেল গ্যাস তৈরি হয়েছে। এতে শ্বাসরুদ্ধ হয়ে মারা গেছেন রাজিব ও আল-আমিন। " ভোলা সদর মডেল থানার ওসি মীর খায়রুল কবির বলেন, "লাশ ময়নাতদন্ত শেষে নিহতদের স্বজনদের সঙ্গে কথা বলার পর আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে। "

 


মন্তব্য