kalerkantho

মঙ্গলবার । ৬ ডিসেম্বর ২০১৬। ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৫ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


পূজা উপলক্ষে আইনশৃঙ্খলা বিষয়ক মতবিনিময় সভা

বরগুনায় ইউএনও’র বিরুদ্ধে অসহযোগিতার অভিযোগ

বরগুনা প্রতিনিধি    

২৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ২০:৩৪



বরগুনায় ইউএনও’র বিরুদ্ধে অসহযোগিতার অভিযোগ

বরগুনায় আসন্ন শারদীয় দূর্গাপূজা উপলক্ষে আইনশৃঙ্খলা বিষয়ক মতবিনিময় সভায় বামনা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ মনির হোসেন হাওলাদারের বিরুদ্ধে ক্ষোভ ও নিন্দা জানিয়েছেন জেলা পূজা উদযাপন পরিষদ ও হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিষ্টান পরিষদের নেতৃবৃন্দ। আজ বুধবার সকালে বরগুনার পুলিশ সুপার বিজয় বসাকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এক মতবিনিময় সভায় এ ক্ষোভ প্রকাশ করেন তারা।

জেলা পুলিশ সুপারের কার্যালয়ের সভাকক্ষে অনুষ্ঠিত এ মতবিনিময় সভায় জেলার সকল পূজা মণ্ডপে উৎসবমুখর পরিবেশে পূজা উদযাপনের লক্ষ্যে সব ধরনের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে উপস্থিত সকলকে করণীয় বিষয়ে নির্দেশনা দেন পুলিশ সুপার বিজয় বসাক। সভায় জেলার ছয়টি থানার সকল ওসিসহ জেলা পুলিশের উর্ধ্বতন কর্মকর্তা ও জেলা পূজা উদযাপন পরিষদ ও হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

মতবিনিময় সভায় জেলা পূজা উদযাপন পরিষদ ও হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের নেতৃবৃন্দ বলেন, শারদীয় দূর্গোৎসব উদযাপনের লক্ষ্যে প্রস্তুতিমূলক কর্মকাণ্ড নিয়ে আলোচনার জন্য বামনার ইউএনও মোহাম্মদ মনির হোসেন হাওলাদারের সাথে যোগাযোগ করেও কোন সারা পাননি তারা। এর আগে জন্মাষ্টমীর দিনও তার সাথে বহুবার যোগাযোগের চেষ্টা করেও তারা ব্যর্থ হন।

বামনা উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি অঞ্জন চ্যাটার্জী ও হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক মানিক কুমার পংকজ বলেন, বৃহস্পতিবার সকালে সংশ্লিষ্ট সকলকে দাওয়াত না দিয়ে বামনা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ে নামমাত্র একটি মিটিং করা হয়েছে।

এ সময় বরগুনা জেলা পূজা উদযাপন কমিটির সভাপতি ও জেলা কমিউনিটি পুলিশের সাধারণ সম্পাদক সুখ রঞ্জন শীল বলেন, ‘আমরা কারও সাথে বিরোধ চাই না। ইউএনও সাহেবের হয়ত অন্যান্য ব্যস্ততা ছিলো, আশা করি পরবর্তীতে তিনি এ বিষয়ে তার সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দেবেন’।


মন্তব্য