kalerkantho


কেরানীগঞ্জে স্কুলের জমি উদ্ধার দাবিতে শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন

কেরানীগঞ্জ (ঢাকা) প্রতিনিধি    

২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৬:৪২



কেরানীগঞ্জে স্কুলের জমি উদ্ধার দাবিতে শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন

ঢাকার কেরানীগঞ্জের রামেরকান্দা ইস্পাহানী উচ্চ বিদ্যালয় ও ইস্পাহানী বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের জমি উদ্ধার ও মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল বুধবার সকাল সাড়ে ১০টা থেকে ১১টা পর্যন্ত ঢাকা-নবাবগঞ্জ সড়কের বোর্ডিং এলাকায় স্কুল-কলেজের কয়েক শ শিক্ষার্থী, শিক্ষক, অভিভাবক, স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ, রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ মানববন্ধনে অংশগ্রহণ করেন।

জানা যায়, ইস্পাহানী উচ্চ বিদ্যালয় ও ইস্পাহানী বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের নামে রোহিতপুর বোর্ডিং এলাকায় বেশ কিছু জমি রয়েছে। সেখান থেকে ২২ শতাংশ জমি একটি চক্র দীর্ঘদিন ধরে জবর দখল করে রেখেছে। সম্প্রতি স্থানীয় প্রশাসনের সহায়তায় বিদ্যালয় ও কলেজ পরিচালনা পরিষদের নেতৃবৃন্দ জমি উদ্ধারের জন্য দখলদারদের উচ্ছেদ করেন। কিন্তু দখলদাররা পুনরায় জমি দখলের পাঁয়তারা করছে এবং পরিচালনা পরিষদের সদস্য, শিক্ষকসহ ১৯ জনকে আসামি করে আদালতে একটি মিথ্যা মামলা দায়ের করে।

ইস্পাহানী উচ্চ বিদ্যালয় পরিচালনা পরিষদের সভাপতি ও ঢাকা জেলা যুবলীগ সভাপতি শফিউল আজম খান বারকু জানান, ১৯৮৬ সালে ওই জমি জনৈক ব্যক্তি সোলেনামার (আপোষ বন্টন) মাধ্যমে স্কুল ও কলেজের নামে দিয়ে যান। কিন্তু স্থানীয় শফিউদ্দিন, কফিলউদ্দিন, ইদ্রিস এবং আব্দুল হক জমিটি দীর্ঘদিন জবরদখল করে রাখেন এবং দোকানঘর তুলে ভাড়া আদায় করছেন। সম্প্রতি পরিচালনা পর্ষদের পক্ষ থেকে জমিটি উদ্ধারের উদ্যোগ নেওয়া হয় এবং দোকানঘর উচ্ছদ করা হয়। কিন্তু উল্টো দখলদাররা পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি, সদস্য, শিক্ষক, স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গসহ ১৯ জনের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা করে হয়রানি করছে।

মানববন্ধনে আরো বক্তব্য দেন ইস্পাহানী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মাহবুব আলম, সহকারী প্রধান শিক্ষক রেজাউল ইসলাম তাপস, শফিউল আজম খান বারকু, ভিপি মনির হোসেন, শেখ শাহাদাত শাহ, মিন্টু হোসেন, ইলাহী মেম্বার, বদিউল আলম, লায়ন ইউসুফ, জিএস নাসির প্রমুখ।

 


মন্তব্য