kalerkantho

শুক্রবার । ৯ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৮ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


গৌরনদীতে ব্রাক স্কুলে প্রতিপক্ষের হামলা, শিক্ষিকাসহ আহত ৫

গৌরনদী প্রতিনিধি   

১৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৮:৫৩



গৌরনদীতে ব্রাক স্কুলে প্রতিপক্ষের হামলা, শিক্ষিকাসহ আহত ৫

বরিশালের গৌরনদী উপজেলার বাঘমারা ব্রাক স্কুলে হামলা চালিয়ে এক শিক্ষিকাসহ ৫ শিক্ষার্থীকে পিটিয়ে আহত করেছে প্রতিপক্ষরা। গুরুতর আহত পঞ্চম শ্রেণীর ছাত্রী সাথী আক্তারকে (১০) গৌরনদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

স্কুলটি বন্ধ না করার কারণে আজ রবিবার সকালে প্রতিপক্ষরা ওই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে এ হামলা চালায়। এ ঘটনার সাথে জড়িত থাকার সন্দেহে হাসান ফরিয়া (২৫) নামে একজনকে আটক করেছে পুলিশ।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, বেসরকারি এনজিও ব্রাকের শিক্ষা প্রকল্পের অধীনে গৌরনদী ব্রাক অফিস উপজেলার বাঘমারা গ্রামের শহিদ খানের বাড়ি ভাড়া নিয়ে গত ১০ বছর ধরে ব্রাক স্কুল চালিয়ে আসছে। সম্প্রতি ঢাকায় বসে ওই স্কুলের শিক্ষিকা শাহানাজ আক্তারের সাথে বাঘমারা গ্রামের ছালাম ফরিয়ার কন্যা রেটিনা খানমের বাকবিতণ্ডা হয়। এ ঘটনাটি ছালাম ফরিয়া তার প্রতিবেশী আত্মীয় বাড়ির মালিক শহিদ খানকে জানায়। ছালামের পক্ষ নিয়ে প্রতিবেশী শহিদ খান তার বাড়ির ব্রাক স্কুল বন্ধ করে দেওয়ার জন্য শিক্ষিকা শাহানাজ আক্তারকে চাপ সৃষ্টি করে আসছিল। ওই শিক্ষিকা স্কুল বন্ধ না করার কারণে ক্ষিপ্ত হয়ে শহিদ খান, ছালাম ফরিয়া, রকমানের নেতৃত্বে ১০-১২ জন নারী-পুরুষ লাঠিসোটা নিয়ে আজ রবিবার বেলা ১১টার দিকে ওই ব্রাক স্কুলে হামলা চালায়। হামলাকারীরা শিক্ষিকা শাহানাজ আক্তার, পঞ্চম শ্রেণির শিক্ষার্থী সাথী আক্তার, রিয়া খানম, সাবিনা খানম, ইমনসহ ৫ শিক্ষার্থীকে পিটিয়ে আহত করে। এ সময় আত্মরক্ষার জন্য ওই স্কুলের ৩২ শিক্ষার্থী দিকদ্বিক ছুটাছুটি করে। গুরুতর আহত শিক্ষার্থী সাথী আক্তারকে গৌরনদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। খবর পেয়ে গৌরনদী থানার এসআই মোঃ নজরুল ইসলাম সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে হামলার ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে হাসান ফরিয়া (২৫)কে আটক করে থানায় নিয়ে যায়।

এ ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে গৌরনদী মডেল থানার ওসি মোঃ আলাউদ্দিন মিলন বলেন, এ ঘটনায় শিক্ষিকা ও শিক্ষার্থীর অভিভাবকরা অভিযোগ দিতে চায় না। খবর পেয়ে তাৎক্ষনিক পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে ঘটনার সাথে জড়িত থাকার সন্দেহে হাসান ফরিয়াকে আটক করে থানায় নিয়ে আসা হয়।  

তিনি আরো জানান, বার্থী ইউপির দুজন সদস্য এ ঘটনাটি আপোষ মিমাংসা করে দেওয়ার জন্য আটককৃত ফরিয়াকে ছাড়িয়ে নিতে থানায় এসেছে। থানার বসে আজ সন্ধ্যার মধ্যে জনপ্রতিনিধিরা ও ভুক্তভোগীরা বিষয়টি আপোষ মিমাংসা করতে পারলে আটককৃতকে ছেড়ে দেওয়া হবে।


মন্তব্য