kalerkantho


স্ত্রীকে বিদেশ যেতে বাঁধা দেয়ায় তুলকালাম; নারীসহ আহত ১৭

গৌরনদী প্রতিনিধি   

১৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৯:৩৭



স্ত্রীকে বিদেশ যেতে বাঁধা দেয়ায় তুলকালাম; নারীসহ আহত ১৭

স্ত্রীকে বিদেশ যেতে বাঁধা দেয়ায় শ্বশুরবাড়ির লোকজন ফিল্মিষ্টাইলে হামলা চালিয়ে পিটিয়ে ও কুপিয়ে নারীসহ ১৭ জনকে আহত করেছে। গুরুতর আহতদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। হামলাকারীরা দুটি বসত ঘর ভাংচুর করে ব্যাপক লুটপাট করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় শুক্রবার রাতে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। হামলার ঘটনাটি ঘটেছে জেলার গৌরনদী উপজেলার নলচিড়া ইউনিয়নের দক্ষিণ পিঙ্গলাকাঠী গ্রামে।

হাসপাতালে শষ্যাশয়ী ওই গ্রামের রশিদ খলিফার পুত্র কালাম খলিফা জানান, তার স্ত্রী দুসন্তানের জননী জীবন নেছা বেগম (৩০) বিগত তিন বছর পূর্বে তারই অমতে ভাইদের টাকায় দুবাইতে যায়। গত একমাস পূর্বে সে ছুটিতে দেশে এসে পূনরায় দুবাই যাওয়ার কথা বলে। এতে তিনি বাঁধা দেয়ায় তাদের দাম্পত্য কলহ দেখা দেয়। তারই ধারাবাহিকতায় বৃহস্পতিবার রাতে সে (কালাম) তার স্ত্রী জীবন নেছাকে কয়েকটি চড়-থাপ্পর দেয়। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে জীবন নেছার চাচাতো ভাই মধ্য পিঙ্গলাকাঠী গ্রামের মামুন বেপারী, লুৎফর রহমান, সোহেল, এমরান, মোক্তার হোসেন, আকতার, মিজু বেপারী, জুলহাস, আব্দুল জলিল, সুজন, নিকট আত্মীয় হারুন সরদার, সুমন সরদার, রুবেল, রাব্বি, আলামিনের নেতৃত্বে ২৫/৩০জনে দেশীয় অস্ত্রে সজ্জিত হয়ে শুক্রবার দুপুর বারোটার দিকে কালাম খলিফার বাড়িতে হামলা চালায়।

হামলাকারীরা পিটিয়ে ও কুপিয়ে ফরহাদ হোসেন, তাজেলা বেগম, আজিজুল খলিফা, কালাম খলিফা, রিয়াজুল ইসলাম, মহিউদ্দিন, রাহেলা বেগম, হোসনেয়ারা বেগম, হাসি বেগম, ইসাহাক খলিফা, তুহিন খলিফা, সিরাজ খলিফা, গোলবানু বিবি, নুপুর বেগম, ছালমা বেগম, মীম খানম, মর্জিনা বেগমকে আহত করে।

স্থানীয় সাবেক ইউপি সদস্য সামছুল হক জানান, হামলাকারীরা কালাম খলিফা ও শাহজাহান খলিফার বসত ঘরে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাংচুর ও লুটপাট করেছে। গুরুতর আহত ছয়জনকে গৌরনদী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এ ঘটনায় মর্জিনা বেগম বাদি হয়ে ওইদিন রাতে গৌরনদী মডেল থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।


মন্তব্য