kalerkantho

সোমবার । ৫ ডিসেম্বর ২০১৬। ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৪ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


বাগেরহাটে শিশু ধর্ষণের দায়ে যুবকের যাবজ্জীবন

বাগেরহাট প্রতিনিধি   

৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৭:০২



বাগেরহাটে শিশু ধর্ষণের দায়ে যুবকের যাবজ্জীবন

বাগেরহাটের ফকিরহাটে ঘুমন্ত অবস্থায় এক শিশুকে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে ধর্ষণের দায়ে এক যুবককে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদন্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। রবিবার বাগেরহাটের শিশু আদালতের বিচারক মো. জাকারিয়া হোসেন এ রায় ঘোষণা করেন।

একই সঙ্গে আদালত দন্ডপ্রাপ্ত আসামিকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো ছয় মাস কারাভোগের নির্দেশ দেন। রায় ঘোষণার সময় দন্ডপ্রাপ্ত ওই আসামি আদালতের কাঠগড়ায় উপস্থিত ছিলেন।

দন্ডপ্রাপ্ত আলী সরদার (২০) বাগেরহাট জেলার ফকিরহাট উপজেলার সুবোদিয়া গ্রামের খোকন সরদারের ছেলে।

ধর্ষণের শিকার ওই শিশুটি ফকিরহাট উজেলার একটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তৃতীয় শ্রেণির শিক্ষার্থী। মামলা দায়েরের পর শিশুটি আদালতে ২২ ধারায় ঘটনার বর্ণনা দেয়।

মামলার সংক্ষিপ্ত বিবারণে জানা গেছে, আলী সরদার ২০১৫ সালের ১৩ জুলাই গভীর রাতে প্রতিবেশী ওই শিশুটির বাড়িতে গিয়ে কৌশলে ঘরের দরজা খুলে ভিতরে প্রবেশ করে। ফুফুর কাছে ঘুমিয়ে থাকা শিশুটিকে বিছানা থেকে তুলে ওই গ্রামে একটি মৎস্য ঘেরের পাশে নিয়ে ধর্ষণ করে। পরে রক্তাক্ত অবস্থায় শিশুটিকে বাড়ির দরজার কাছে ফেলে রেখে যায়। এ ঘটনায় শিশুটির মা বাদী হয়ে আলী সরদারকে আসামি করে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে ফকিরহাট থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। পরে পুলিশ আলী সরদারকে আটক করে।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ফকিরহাট থানার তৎকালীন উপপরিদর্শক (এসআই) শফিকুল ইসলাম তদন্ত শেষে ওই বছর ২১ সেপ্টেম্বর আলী সরদারকে অভিযুক্ত করে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। ঘটনার ১৪ মাসের মধ্যে আদালত রায় ঘোষণার মধ্যে দিয়ে মামলার বিচার কার্য শেষ করেছেন।


মন্তব্য