kalerkantho


চিফ জুডিশিয়াল আদালত

লক্ষ্মীপুরে কর্মচারী নিয়োগে উচ্চ আদালতের নির্দেশ উপেক্ষিত

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি   

৩ এপ্রিল, ২০১৬ ১৫:২১



লক্ষ্মীপুরে কর্মচারী নিয়োগে উচ্চ আদালতের নির্দেশ উপেক্ষিত

লক্ষ্মীপুর চিফ জুডিশিয়াল আদালতের বিভিন্ন শাখায় ৯ জনকে নিয়োগের জন্য উচ্চ আদালতের নির্দেশ দিলেও তা তিন বছরেও বাস্তবায়ন হয়নি। এ নিয়ে নিয়োগপ্রার্থীরা মানবেতর জীবনযাপন করছেন। শনিবার (২ এপ্রিল) লক্ষ্মীপুর শহরের একটি কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলন করে এ অভিযোগ করেন তারা। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন চাকরি নিয়োগপ্রার্থী মাইন উদ্দিন, আবদুল মান্নান, মফিজুল ইসলাম, আনোয়ার হোসেন, সুদেব চন্দ্র ভৌমিক ও আশরাফুল ইসলাম।

লিখিত বক্তব্যে তাঁরা জানায়, ২০১১ সালের ১০ অক্টোবর লক্ষ্মীপুর চিফ জুডিশিয়াল আদালতে স্টেনোগ্রাফার, স্টেনো টাইপিস্ট, তুলনা সহকারী, বেঞ্চ সহকারী, অফিস সহকারী (কাম-কম্পিউটার) অপারেটর, ড্রাইভার, প্রেস সার্ভার ও এমএলএসএস পদে লোক নিয়োগ করা হয়। ২০১২ সালের ৮ ও ৯ জুন লিখিত, মৌখিক এবং ব্যবহারিক পরীক্ষায় তারা অংশগ্রহণ করে কৃতকার্য হন। একই বছরের ৯ জুন নিয়োগের জন্য চূড়ান্ত করে জেলা ও দায়রা জজের কার্যালয়ের নোটিশ বোর্ডে তাদের তালিকা প্রকাশ করা হয়। কিন্তু দীর্ঘদিন ধরে তাদের চাকরিতে যোগদান প্রক্রিয়া বন্ধ থাকায় ২০১৩ সালে সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগে নিয়োগপ্রার্থী মাইন উদ্দিন রিট পিটিশন দায়ের করে। ওই পিটিশনের ওপর আদালত দীর্ঘ শুনানি শেষে একই বছরের ২৫ সেপ্টেম্বর ৬০ দিনের মধ্যে তাদের নিয়োগ দেওয়ার জন্য নির্দেশ প্রদান করা হয়। তারপরও অদ্যাবধি তাদের নিয়োগ বন্ধ রয়েছে। এতে তারা মানবেতর জীবনযাপন করছেন বলে জানান।

 


মন্তব্য