kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৭ জানুয়ারি ২০১৭ । ৪ মাঘ ১৪২৩। ১৮ রবিউস সানি ১৪৩৮।


ভোলায় সাংবাদিক গুলিবিদ্ধের ঘটনায় সেই পুলিশ কনস্টেবল ক্লোজড

ভোলা প্রতিনিধি   

২ এপ্রিল, ২০১৬ ১৭:৫৭



ভোলায় সাংবাদিক গুলিবিদ্ধের ঘটনায় সেই পুলিশ কনস্টেবল ক্লোজড

দ্বিতীয় দফার ইউপি নির্বাচনে ভোলায় ভোটকেন্দ্রে সাংবাদিক আফজাল হোসেনকে গুলি করার ঘটনায় পুলিশের সেই কনস্টেবলকে ক্লোজড করা হয়েছে। এ খবর নিশ্চিত করেছেন ভোলার পুলিশ সুপার মো. মনিরুজ্জামান।

এ ব্যাপারে পুলিশ সুপার মনিরুজ্জামান কালের কণ্ঠকে বলেন, সাংবাদিককে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ার ঘটনায় অভিযুক্ত কনস্টেবল জুলহাসের বিরুদ্ধে তদন্তপূর্বক আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। তিনি আরো বলেন, এ ঘটনায় ইতিমধ্যে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। এসপি (সার্কেল)কে তদন্তের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে।

তবে অভিযুক্ত কনস্টেবল জুলহাসের দাবি, শটগান নিয়ে নাড়াচাড়া করার সময় অসাবধানতাবশত শটগানের গুলি বের হয়ে সাংবাদিক আফজালের পায়ে বিদ্ধ হয়।

এদিকে ভোটকেন্দ্রে পেশাগত দায়িত্ব পালনকালে সাংবাদিক আফজাল হোসেনকে লক্ষ্য করে গুলি  ছোড়ার প্রতিবাদে আগামীকাল রবিবার সকালে প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হবে বলে জানান ভোলা টেলিভিশন জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি ও এটিএন বাংলার ভোলা প্রতিনিধি আহাদ চৌধুরী তুহিন।     

প্রসঙ্গত, গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে সদর উপজেলার রাজাপুর ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ডের ২ নম্বর রাজাপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোটকেন্দ্রে পেশাগত দায়িত্ব পালন করছিলেন এনটিভির স্টাফ রিপোর্টার আফজাল হোসেন। এ সময় ওই কেন্দ্রে দায়িত্বরত পুলিশের কনস্টেবল জুলহাস সাংবাদিক আফজালকে লক্ষ্য করে শটগানের গুলি ছোড়ে। ওই গুলি আফজালের বাম পায়ে বিদ্ধ হয়। পরে তাকে ভোলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

এ ঘটনায় সাংবাদিক আফজাল হোসেন অভিযোগ করে কালের কণ্ঠকে বলেন, পুলিশের কনস্টেবল জুলহাস যেকোনো এক প্রার্থীর কাছ থেকে মোটা অঙ্কের টাকার বিনিময়ে পরিকল্পিতভাবে আমার পায়ে গুলি ছুড়েছে। সুস্থ হয়ে পুলিশ কনস্টেবল জুলহাসের বিরুদ্ধে মামলা করবেন বলেও জানান তিনি।  

 

 

 

 

 

 


মন্তব্য