kalerkantho


অসময়ে কিছুটা জৌলুস হারালেও

সুলতান মে্লায় সাংস্কৃতিক সংগঠনের ব্যস্ততা বেড়েছে

নড়াইল প্রতিনিধি   

২৪ মার্চ, ২০১৬ ২০:১৭



সুলতান মে্লায় সাংস্কৃতিক সংগঠনের ব্যস্ততা বেড়েছে

ডিসেম্বরের মেলা মার্চ মাসের এই সময়ে হওয়াতে মেলার স্টল ও লোকজনের উপস্থিতি কিছুটা কম হলে ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের কমতি নেই। বরেণ্য চিত্রশিল্পী এস এম সুলতানের ৯১তম জন্মজয়ন্তী উপলক্ষে সপ্তাহব্যাপী সুলতান মেলায় এবার  স্থানীয় ৩৫টি সংগঠন সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশন করছে।

১৮ মার্চ থেকে শুরু হওয়া ৭ দিনব্যাপী এই মেলায় প্রতিদিন অন্ততঃ ৬টি সংগঠন তাদের সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশন করছে। মেলাকে কেন্দ্র করে নড়াইলের সাংস্কৃতিক সংগঠনগুলো সরব হয়ে উঠেছে। মেলায় মোট ৪টি সংগঠনের নাটক পরিবেশিত হয়েছে।

এবার মেলায় স্থানীয় মূর্ছনা সংগীত নিকেতন, সরগম, ছায়ানট, গ্রেভ, যুগান্তর, সুরধাম, ছন্দায়ন, শহীদ মানিক-চয়ন স্মৃতি সংসদ, চিত্রা থিয়েটার, উদীচী শিল্পী গোষ্ঠী, বেনুকা, ড্রামা সার্কেল, জেলা শিল্পকলা একাডেমিসহ বিভিন্ন সংগঠন নৃত্য, কবিতা আবৃত্তি, সঙ্গীতানুষ্ঠান ও নাটক করছে। প্রতিদিন বিকেলে সেমিনারের পর সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান শুরু হয়ে রাত সাড়ে ১০টা পর্যন্ত চলে।

প্রতিদিন সুলতান মঞ্চ চত্বরে জেলা প্রশাসন ও এস এম সুলতান ফাউন্ডেশনের আয়োজনে সুলতান মেলায় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ছাড়াও রয়েছে বিভিন্ন  গ্রামীন খেলাধুলা, চিত্র প্রদর্শনী ও শিল্পীর জীবন ও কর্মের উপর সেমিনার। আয়োজক সূত্রে জানা গেছে, এবার সুলতান স্বর্ণ পদক পচ্ছেন চিত্রশিল্পী আব্দুল মান্নান। মেলার সমাপনী দিন বৃহস্পতিবার(২৪ মার্চ) তাঁকে এ পদক প্রদান করা হয়।

১৮ মার্চ মেলার উদ্বোধন করেন জাতীয় সংসদের ডেপুটি স্পিকার এড.ফজলে রাব্বি মিয়া।

এদিকে প্রতিবছরের মতো এবারের মেলা ডিসেম্বর থেকে পিছিয়ে মার্চে অনুষ্ঠিত হওয়ায় মেলার আকর্ষণ কিছুটা কম হয়েছে বলে স্বীকার করেছেন সুলতান ফাউন্ডেশনের সভাপতি ও জেলা প্রশাসক হেলাল মাহমুদ শরীফ। তিনি জানান,এবারে মেলা কিছুটা অনুষ্ঠিত হলেও আগামীতে ডিসেম্বরেই এই মেলা আয়োজনের চেষ্টা করা হবে। এছাড়া কিছু গুণীজনের নামে ও এ ধরনের বড় মেলার আয়োজন করবেন বলে জানান তিনি।


মন্তব্য