kalerkantho

25th march banner

জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে চেয়ারম্যান প্রার্থীর সংবাদ সম্মেলন

শেরপুর প্রতিনিধি    

১৭ মার্চ, ২০১৬ ১৫:৫০



জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে চেয়ারম্যান প্রার্থীর সংবাদ সম্মেলন

'এক ভোট দিলেও পাস'-এমন প্রচারণা ছড়িয়ে ভোটারদের নানাভাবে হুমকি দিয়ে আতঙ্ক ছড়াচ্ছেন আওয়ামী লীগদলীয় প্রার্থী আব্দুস সবুর ও তাঁর সমর্থকরা'- এমন অভিযোগ করেছেন শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার বাঘবেড় ইউনিয়নের মোটরসাইকেল প্রতীকের স্বতন্ত্র হিসেবে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী মো. হাসানুজ্জামান রিয়াদ।

হাসানুজ্জামান রিয়াদ জানান, নৌকা প্রতীকের প্রার্থী ও তাঁর কর্মী-সমর্থকরা তাঁর ওপর হামলা চালিয়ে নির্বাচনী কার্যালয় ভাঙচুর করে তাঁকে প্রাণনাশের হুমকি দেন। এ ছাড়া তাঁকে অবরুদ্ধ করে রাখার অভিযোগ করেন তিনি। আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে শেরপুর প্রেসক্লাবে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে নিজের জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে ও সুষ্ঠু নির্বাচনের দাবি জানিয়ে এসব কথা বলেন ওই প্রার্থী।
 
সংবাদ সম্মেলনে লিখিত অভিযোগে তিনি বলেন, "আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়ন না পেলেও স্থানীয় জনগণের চাপের মুখে আমাকে স্বতন্ত্র প্রার্থী হতে হয়েছে। এলাকায় আমার অবস্থা খুব ভালো হওয়ায় এবং আওয়ামী লীগ প্রার্থীর ভরাডুবির আশঙ্কায় আমাকে নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়াতে নানাভাবে ভয়ভীতি ও প্রাণনাশের হুমকি দেওয়া হচ্ছে। " তিনি বলেন, "গত মঙ্গলবার রাতে আমার নির্বাচনী পথসভায় আওয়ামী লীগ সমর্থকরা দেশীয় অস্ত্র নিয়ে হামলা চালিয়ে মারপিট করে চার কর্মী-সমর্থককে গুরুতর আহত করে। নালিতাবাড়ী পৌর মেয়র আবু বক্করের নেতৃত্বে একদল সন্ত্রাসী হামলা করে কয়েকটি নির্বাচনী কার্যালয়  ভাঙচুর করেছে। গতকাল বুধবার নৌকা প্রতীকের প্রার্থী আব্দুস সবুরের নেতৃত্বে এলাকায় লগি-বৈঠা নিয়ে মিছিল করে জনমনে আতঙ্ক সৃষ্টি করা হয়। এসব বিষয়ে থানায় অভিযোগ করলে উল্টো থানার ওসি আমাকে নীরবে বসে থাকতে বলেছেন। "  

এ ব্যাপারে আওয়ামী লীগ প্রার্থী আব্দুস সবুর বলেন, "এক ভোট নিয়ে পাশ হলে সকাল-সন্ধ্যা মাঠে কাজ করতাম না। এটা সম্পুর্ণ ভিত্তিহীন কথা। তাঁকে অবরোধ করে রাখার ঘটনা বানোয়াট। আমার কোনো  কর্মী-সমর্থক তাঁকে কিংবা তাঁর কোনো কর্মীকে মারধর করেনি। বরং স্বতন্ত্র প্রার্থী হাসানুজ্জামান রিয়াদ উসকানিমূলক বক্তব্য দিয়ে পরিস্থিতি ঘোলাটে করার চেষ্টা করছেন। "  

স্বতন্ত্র প্রার্থী হাসানুজ্জামান রিয়াদের অভিযোগের বিষয়ে নালিতাবাড়ী পৌর মেয়র আবু বক্কর সিদ্দিক মুঠোফোনে বলেন, "আমার বিরুদ্ধে করা অভিযোগ সম্পূর্ণ মিথ্যা-বানোয়াট এবং ভিত্তিহীন। বরং আমার বাড়ি ওই ইউনিয়নে। সেখানে আমার বাড়ির সামনের নৌকার নির্বাচনী কার্যালয়টি ভাঙচুর করা হয়েছে। এসব বিষয়ে প্রশাসনের কাছে প্রমাণ রয়েছে। এ ব্যাপারে মামলা হয়েছে। " এ ব্যাপারে নালিতাবাড়ী থানার ওসি এ কে এম. ফসিহুর রহমান বলেন, "স্বতন্ত্র প্রার্থী হাসানুজ্জামান রিয়াদের অভিযোগ সত্য নয়। বাঘবেড় ইউনিয়নের ঘটনায় দুই পক্ষ থেকে দুটি অভিযোগ দেওয়া হলে দুটি মামলা রেকর্ড করা হয়েছে। ঘটনার পর বুধবার দিনভর নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে পুলিশ বাঘবেড় ইউনিয়নে টহল দিয়েছে। "  

 


মন্তব্য