kalerkantho


রায়পুরে বিদ্যালয়ে আওয়ামী লীগ নেতার তালা, পাঠদান বন্ধ

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি   

১৬ মার্চ, ২০১৬ ১৭:৩৮



রায়পুরে বিদ্যালয়ে আওয়ামী লীগ নেতার তালা, পাঠদান বন্ধ

লক্ষ্মীপুরের রায়পুর উপজেলার চরবংশী মডেল স্কুলে বার্ষিক ক্রীড়া অনুষ্ঠানে বির্তক প্রতিযোগিতাকে কেন্দ্র করে তালা ঝুঁলিয়ে দিয়ে দেওয়া হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার সকালে উত্তর চরবংশী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান খাঁন ও তাঁর অনুসারীরা এ তালা দেয়। এতে দুইদিন ধরে প্রতিষ্ঠানটির শিক্ষা কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে।

স্থানীয় সূত্র জানায়, গত সোমবার বিকেলে চরবংশী মডেল স্কুলে বার্ষিক ক্রীড়া অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। সেখানে বির্তক প্রতিযোগিতায় বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা অংশ নেয়। প্রতিযোগিদের স্থান নির্ধারণ নিয়ে মনোমালিন্যে জড়িয়ে পড়েন বিদ্যালয়ের শিক্ষক ও স্থানীয় কিছু লোকজন। এর জের ধরে মঙ্গলবার সকালে আওয়ামী লীগ নেতা মফিজুর রহমান খাঁন ও তাঁর অনুসারীরা বিদ্যালয়ের প্রধান গেইটে তালা ঝুঁলিয়ে দেয়। এ সময় বিদ্যালয়ের পরিচালক আবদুল হামিদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন শ্লোগান দেওয়া হয়। এরপরে মঙ্গলবার রাত ১১টার দিকে ওই আওয়ামী লীগ নেতার ছেলে শরিফ সহযোগিদের নিয়ে আবদুল হামিদকে খাসের হাট বাজারে ধাওয়া করে।

বিদ্যালয় সূত্রে জানায়, প্লে থেকে অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত বিদ্যালয়টিতে পাঠদান করা হয়। সেখানে ৪৭০ জন ছাত্র-ছাত্রী অধ্যায়নরত। বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণির ছাত্র মো. হাছান ও ষষ্ঠ শ্রেনির কোরেসা ইয়াসমিন কাকন জানান, বিদ্যালয়ে তালা দেওয়ার কারণে তাদের পড়ালেখা বন্ধ রয়েছে। শিক্ষক, শিক্ষার্থীরা আতঙ্কে রয়েছে।

এ বিষয়ে চরবংশী মডেল স্কুলের প্রধান শিক্ষক সৈয়দ আহমেদ বলেন, বিদ্যালয় গেইটে তালা দেওয়ার কারণে দুই দিন ধরে পাঠদান বন্ধ রয়েছে।   আতঙ্কের কারণে তিনি কোন মন্তব্য করতে রাজি হয়নি।

এদিকে এ প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগ নেতা মফিজুর রহমান খাঁন বলেন, বির্তক প্রতিষ্ঠানের নামে কৌশলে ষড়যন্ত্র করা হয়েছে। এজন্য আমি এলাকার লোকজনকে নিয়ে বিদ্যালয়ে তালা ঝুঁলিয়ে দিয়েছি। বিষয়টি সমাধান করা হবে।

এ ব্যাপারে রায়পুরের হাজীমারা পুলিশ ফাঁড়ির উপ-পরিদর্শক (এসআই) সিরাজ মিয়া বলেন, বিদ্যালয়ের তালা ঝুঁলিয়ে দেওয়ার কথা শুনেছি। এ বিষয়ে খোঁজ-খবর নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

 

 


মন্তব্য