kalerkantho

রবিবার । ১১ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


ইউপি নির্বাচন

ভোলার সেই স্বামী-স্ত্রী চেয়ারম্যান প্রার্থী মাঠ ছেড়েছেন

ভোলা প্রতিনিধি    

৮ মার্চ, ২০১৬ ১৫:৪৭



ভোলার সেই স্বামী-স্ত্রী চেয়ারম্যান প্রার্থী মাঠ ছেড়েছেন

আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে ভোলা সদর উপজেলার ৮ নম্বর আলীনগর ইউনিয়নের সেই আলোচিত স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী জাহিদুল হক শুভ (আনারস প্রতীক) ও তাঁর স্ত্রী সানজিদা হক (টেলিফোন প্রতীক) নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়িয়েছেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতাদের চাপে শেষ পর্যন্ত আর নির্বাচনী মাঠে থাকতে পারেননি জাহিদুল হক শুভ ও তাঁর স্ত্রী সানজিদা হক।

সকল জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে অবশেষে নির্বাচনী মাঠ থেকে সরে দাঁড়িয়েছেন দলের বিদ্রোহী এ দুই চেয়ারম্যান প্রার্থী। তাঁরা আজ মঙ্গলবার থেকে সব ধরনের নির্বাচনী প্রচারণা বন্ধ করে দিয়েছেন। ইউনিয়নের বিভিন্ন ওয়ার্ডে স্থাপিত ওই দুই বিদ্রোহী চেয়ারম্যান প্রার্থীর নির্বাচনী ক্যাম্পও সরিয়ে ফেলা হয়েছে।

সরেজমিনে দেখা গেছে, আলীনগর ইউনিয়নের বটতলা নতুন মসজিদ এলাকায় স্থাপিত স্বতন্ত্র প্রার্থী জাহিদুল হক শুভ'র নির্বাচনী ক্যাম্প সরিয়ে ফেলা হয়েছে। গত ২-৩ দিন আগেও ওই এলাকায় আওয়ামী লীগদলীয় চেয়ারম্যান প্রার্থী বশির আহমেদের নৌকা প্রতীকের নির্বাচনী ক্যাম্পের সামনে দলের বিদ্রোহী প্রার্থী জাহিদুল হক শুভ'র ক্যাম্প ছিল। কিন্তু আজ মঙ্গলবার সেখানে আর চোখে পড়েনি তাঁর ক্যাম্প।

স্থানীয়রা জানায়, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতাদের চাপে জাহিদুল হক শুভ ও তাঁর স্ত্রী সানজিদা হক নির্বাচনী মাঠ থেকে সরে দাঁড়িয়েছেন। তাই এখান থেকে শুভ'র নির্বাচনী ক্যাম্পও সরিয়ে ফেলা হয়েছে। আসন্ন ইউপি নির্বাচনে তাঁরা স্বামী-স্ত্রী আর নির্বাচন করবেন না। ফলে এ ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের আর কোনো বিদ্রোহী প্রার্থী নেই। এ ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের একমাত্র দলীয় প্রার্থী মো. বশির আহমেদ।           

এ বিষয়ে জানতে চাইলে জাহিদুল হক শুভ আজ মঙ্গলবার দুপুরে কালের কণ্ঠকে বলেন, "জৈনপুরী পীর সাহেবের অনুরোধে আমি ও আমার স্ত্রী স্বতন্ত্র প্রার্থী সানজিদা হক নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়িয়েছি। তাই সব ধরনের নির্বাচনী প্রচারণাও বন্ধ করে দিয়েছি। "                 

 


মন্তব্য