kalerkantho

মঙ্গলবার । ৬ ডিসেম্বর ২০১৬। ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৫ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


বঙ্গোপসাগরে অপহৃত ২৭ জেলে উদ্ধার, তিন জলদস্যু আটক

বরগুনা প্রতিনিধি    

৩ মার্চ, ২০১৬ ১৭:০২



বঙ্গোপসাগরে অপহৃত ২৭ জেলে উদ্ধার, তিন জলদস্যু আটক

গভীর সমুদ্রে ডাকাতি চলাকালে জলদস্যু মাস্টার বাহিনীর তিন সদস্যকে আটক করেছে কোস্ট গার্ড। এ সময় মুক্তিপণের দাবিতে ডাকাতদের কাছে আটক হওয়া ২৭ জেলেকেও উদ্ধার করা হয়।

আজ বৃহস্পতিবার বিকেল ৪টার দিকে কোস্ট গার্ড পাথরঘাটা স্টেশনে এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা জানান কোস্ট গার্ডের দক্ষিণ জোন ভোলার আঞ্চলিক কমান্ডার মো. আনোয়ার হোসেন।

এ সময় আটককৃত তিন জলদস্যু ও উদ্ধার হওয়া ২৭ জেলেকে গণমাধ্যমের সামনে হাজির করা হয়। আটক তিন জলদস্যুর নাম আলী হোসেন (২৭), শিমুল হোসেন (২৮) এবং সবুজ মাতুব্বর।

আনোয়ার হোসেন বলেন, "মঙ্গলবার দিনে ও রাতে জলদস্যু মাস্টার বাহিনী পটুয়াখালীর কুয়াকাটা থেকে ৬০ কিলোমিটার দক্ষিণে গভীর সমুদ্রের বিভিন্ন এলাকায় জেলে ট্রলারে হামলা চালাচ্ছে এবং মুক্তিপণের দাবিতে বেশ কিছু জেলেকে আটক করা হয়েছে- এমন সংবাদের ভিত্তিতে কোস্টগার্ড পাথরঘাটা স্টেশন গতকাল বুধবার সকালে অভিযানে নামে। কোস্ট গার্ডের উপস্থিতি টের পেয়ে জলদস্যুরা গুলি শুরু করলে কোস্ট গার্ডও পাল্টা গুলি চালায়। একপর্যায়ে জলদস্যুরা আত্মসমর্পণ করে। এ সময় তাদের কাছ থেকে একটি বন্দুক, একটি কাটা রাইফেল, একটি এলজি বেশকিছু গোলাবারুদ ও দেশিও অস্ত্র তিনটি ট্রলার উদ্ধার করা হয়।

জলদস্যুদের আটকের পর রাতভর তাদের নিয়ে আরো জলদস্যু ও অস্ত্র উদ্ধারে অভিযান চালায় কোস্ট গার্ড। পরে তাদের স্বীকারোক্তি অনুযায়ী বুধবার রাতে তাদের কাছে মুক্তিপণের জন্য অপহরণ করা ২৭ জেলেকে উদ্ধার করে কোস্ট গার্ড। আজ বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় তাদেরকে কোস্ট গার্ড পাথরঘাটা স্টেশনে নিয়ে আসা হয়। আটক জলদস্যুদের দুজনের বাড়ি বরিশালে ও একজনের বাড়ি পাবনায় বলেও জানায় কোস্ট গার্ড।

এদিকে, জলদস্যু আটকের খবর পাথরঘাটায় ছড়িয়ে পড়লে কোস্ট গার্ডকে ধন্যবাদ জানিয়ে পাথরঘাটা শহরে আনন্দ মিছিল করে ট্রলার মালিক ও শ্রমিকসহ বিভিন্ন সংগঠন। পরে সমুদ্রকে জলদস্যুমুক্ত রাখতে জেলেদের সঙ্গে মত বিনিময় ও জলদ্যুদের অবস্থান সম্পর্কে তথ্য দিয়ে কোস্ট গার্ডকে সহযোগিতা করার আহ্বান জানান আনোয়ার হোসেন।

 


মন্তব্য