kalerkantho


তোমরা ছেলেটাকে মেরো না

ফয়জুল্লাহ ওয়াসিফ   

৭ মার্চ, ২০১৮ ০০:০০



৩ মার্চ তাঁর ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেকট্রনিকস ইঞ্জিনিয়ারিং (ইইই) বিভাগের উৎসবের শেষ দিন ছিল। তখন রোবটিকস প্রতিযোগিতা হচ্ছিল। বিভাগের প্রধান অধ্যাপকের বাঁ পাশে বসেছিলেন তাঁর বিভাগের প্রভাষক ঋতেশ্বর তালুকদার। বিরতিতে জাফর ইকবাল স্যার একমনে বই পড়ছিলেন। হঠাৎ পেছন থেকে ছেলেটি ছুরি মারতে শুরু করল। স্যারকে তাঁরা জাপটে ধরলেন, যাতে তিনি পড়ে না যান। কালো বর্ণের ছেলেটির হাতে তিনি ছোট্ট ছোরাও দেখেছেন। রক্তে ভেসে যাওয়া লেখক বারবার বলছিলেন, ‘আমি অলরাইট, তোমরা ছেলেটাকে মেরো না।’ তিনি এ বিশ্ববিদ্যালয়েরই অধ্যাপক ও স্ত্রী ড. ইয়াসমিন হকের সঙ্গে কথা বলতে চাইলেন। স্ত্রীকে তিনি বললেন, ‘ইয়াসমিন আমাকে একটি ছেলে ছুরি দিয়ে আঘাত করেছে। ছাত্ররা আমাকে হাসপাতালে নিয়ে যাচ্ছে। তুমি চিন্তা করো না। আমি সুস্থ আছি।’



মন্তব্য