kalerkantho


টিফিন আওয়ার

তবু স্কুলে যাওয়া চাই

২৪ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



তবু স্কুলে যাওয়া চাই

জানুয়ারির ৮ তারিখ। বিশ্বের অনেক জায়গার মতো চীনেও পড়েছে হাড়কাঁপানো শীত। দক্ষিণ চীনের ইউনান প্রদেশের জিনজি শহরের আশপাশের তাপমাত্রা নেমে গেছে হিমাঙ্কের নিচে। ওখানকার জুশানবা প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পড়া ওয়াং ফিউম্যান এই শীতেই বেরোল স্কুলের উদ্দেশে। আট বছরের ছেলেটা সাড়ে চার কিলোমিটার পথ পাড়ি দিয়ে, শূন্যের নিচে ৯ ডিগ্রি তাপমাত্রায় স্কুলে পৌঁছালও। তবে যখন এলো দেখা গেল ঠাণ্ডায় তার চুল, চোখের পাতা সব জমে গেছে। জানুয়ারির ৯ তারিখ তার তুষার সাদা চুলের একটা ছবি ভাইরাল হয়ে গেলে তাকে নিয়ে রীতিমতো আলোড়ন পড়ে যায়। ‘ফ্রস্ট বয়’ নামও পেয়ে যায় সে।

পিপলস ডেইলির তোলা এক ছবিতে দেখা যায়, শীতে ফেটে যাওয়া হাতে একটা পরীক্ষার খাতা ধরে আছে সে। আর ওই পরীক্ষায় গণিতে ৯৯ শতাংশ নম্বর পেয়েছে ওয়াং।

খুব দরিদ্র পরিবারের ছেলে ওয়াং। তবে তার ছবি নেটে আসার পর থেকে অনেকেই তার জন্য অর্থ পাঠাতে থাকে। এভাবে ওয়াংয়ের জন্য জমা পড়ে প্রায় ৮০ হাজার ডলার। তবে এর থেকে শুধু ১২০০ ডলার তাকে দেওয়া হয়েছে। জানানো হয়েছে, বাকি অর্থ ব্যয় করা হবে তার মতো আরো যেসব ভাগ্য বিড়ম্বিত, দরিদ্র শিশু আছে তাদের জন্য। এদিকে ওয়াং ফিউম্যানের বদৌলতে তার বিদ্যালয়ের ছাত্র-ছাত্রীর কপালেই জুটেছে গরম জামা-কাপড়।

—তুষার ইশতিয়াক

 



মন্তব্য