kalerkantho

জাপানি বিনিয়োগকারীদের জন্য অর্থনৈতিক অঞ্চল

নারায়ণগঞ্জে ৫০০ একর জমি পেল বেজা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৫ মার্চ, ২০১৯ ১২:৩৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নারায়ণগঞ্জে ৫০০ একর জমি পেল বেজা

ছবি অনলাইন

নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে অর্থনৈতিক অঞ্চলের জন্য ৫০০ একর জমি বুঝে পেল বাংলাদেশ অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষ (বেজা)। জাপানি বিনিয়োগকারীদের জন্য আড়াইহাজারে এক হাজার একরের ওপর অর্থনৈতিক অঞ্চল প্রতিষ্ঠা হলেও আপাতত তাদের ৫০০ একর জমি দেওয়া হবে। পরবর্তী সময়ে আরো ৫০০ একর জমি দেওয়া হবে।

গতকাল রবিবার রাজধানীর কারওয়ান বাজারে বাংলাদেশ অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষ (বেজা) কার্যালয়ে নারায়ণগঞ্জের জেলা প্রশাসক রাব্বী মিয়া বেজার মহাব্যবস্থাপক মনিরুজ্জামানের কাছে জমি হস্তান্তর করেন। অর্থনৈতিক অঞ্চলটিতে ডেভেলপার হিসেবে কাজ করবে জাপানের বিশ্ববিখ্যাত কম্পানি সুমিতোমো করপোরেশন। প্রথমে ৫০০ একর ও পরবর্তী সময়ে বর্ধিত ৫০০ একর হিসেবে জমি হস্তান্তরের প্রক্রিয়া সম্পন্ন করা হবে। এর অংশ হিসেবে গতকাল নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসন থেকে ৫০০ একর জমি বেজার কাছে হস্তান্তর করা হয়। এ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ-২ আসনের সংসদ সদস্য নজরুল ইসলাম বাবু, বেজার নির্বাহী চেয়ারম্যান পবন চৌধুরী, নারায়ণগঞ্জের জেলা প্রশাসক রাব্বী মিয়াসহ অন্যরা।

নজরুল ইসলাম বাবু বলেন, এ অঞ্চলের মানুষের দীর্ঘদিনের প্রত্যাশা বাস্তবে রূপ নিতে যাচ্ছে। অর্থনৈতিক অঞ্চল স্থাপিত হলে পরিকল্পিত শিল্পায়নের পাশাপাশি কর্মসংস্থান নিশ্চিত হবে।

পবন চৌধুরী বলেন, জাপানিদের জন্য অর্থনৈতিক অঞ্চল গড়ে তোলা বেজার জন্য একটি মাইলফলক এবং ঐতিহাসিক ঘটনা। তিনি বলেন, বেজা অর্থনৈতিক উন্নয়ন ত্বরান্বিত করার লক্ষ্যে জিটুজি ভিত্তিতে অর্থনৈতিক অঞ্চল স্থাপনের নিমিত্তে নানা পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে। তিনি আরো বলেন, জাপানিজ অর্থনৈতিক অঞ্চলে জাপানি বিনিয়োগকারীরা পরিকল্পিত ও পরিবেশবান্ধব শিল্পাঞ্চল গড়ে তুলবে।

অনুষ্ঠানে জানানো হয়, অর্থনৈতিক অঞ্চল স্থাপনের মাধ্যমে দেশি ও বিদেশি বিনিয়োগ আকর্ষণ, দেশে শিল্পায়নের বিকাশ এবং কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি করে দেশের সার্বিক অর্থনৈতিক উন্নয়ন নিশ্চিত করাই প্রকল্পের লক্ষ্য। এ ছাড়া দেশের বিভিন্ন স্থানে অর্থনৈতিক অঞ্চল স্থাপনের মাধ্যমে চীন, জাপান, ভারতসহ বিভিন্ন দেশের সঙ্গে আন্তঃসম্পর্ক উন্নয়ন ও পারস্পরিক ব্যবসায়িক লেনদেন ত্বরান্বিত করার মাধ্যমে সরকারের টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে। জাপানিজ অর্থনৈতিক অঞ্চল স্থাপনের জন্য এরই মধ্যে ক্ষতিগ্রস্তদের পুনর্বাসন এবং দক্ষতা উন্নয়নে প্রশিক্ষণের পরিকল্পনা হাতে নেওয়া হয়েছে বলে অনুষ্ঠানে জানানো হয়।

মন্তব্য