kalerkantho


ইরি ও ইউএসআইডির উদ্যোগ

ট্রান্সফরমিং রাইস ব্রিডিং বিষয়ে আন্তর্জাতিক কর্মশালা সম্পন্ন

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২০ নভেম্বর, ২০১৮ ০২:৫০



ট্রান্সফরমিং রাইস ব্রিডিং বিষয়ে আন্তর্জাতিক কর্মশালা সম্পন্ন

ছবি: কালের কণ্ঠ

ট্রান্সফরমিং রাইস ব্রিডিং বিষয়ে আন্তর্জাতিক কর্মশালা গতকাল সোমবার শেষ হয়েছে। ঢাকার এসিআই সেন্টারে আন্তর্জাতিক ধান গবেষণা ইনস্টিটিউটের (ইরি) উদ্যোগে এবং ইউএসআইডি ও বিল অ্যান্ড মিলিন্ডা গেটস ফাউন্ডেশনের যৌথ অংশীদারিতে আয়োজিত এ কর্মশালায় দেশি-বিদেশি ধান বিজ্ঞানী, আন্তর্জাতিক উন্নয়ন সংস্থার প্রতিনিধি, কৃষিবিষয়ক নীতিনির্ধারক, সরকারি কর্মকর্তা ও কৃষি খাতে বেসরকারি উদ্যোক্তারা উপস্থিত ছিলেন। 

কর্মশালায় বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউট (ব্রি) ও আন্তর্জাতিক ধান গবেষণা ইনস্টিটিউট (ইরি) ১২ জন বিজ্ঞানী রাইস বিড্রিং সম্পর্কীয় ১২টি বিষয়ের ওপর প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন।

রবিবার কৃষি মন্ত্রণালয়ের সচিব নাসিরুজ্জামান কর্মশালার উদ্বোধন করেন। ইরির বাংলাদেশের প্রতিনিধি ড. হামনাথ ভাণ্ডারীর সভাপতিত্বে ওই উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন ব্রির মহাপরিচালক শাহজাহান কবীর, এসিআই গ্রুপের চেয়ারম্যান এম আনিসদ্দৌলা, ইউএসআইডি প্রতিনিধি রয় ফেন, বিল অ্যান্ড মিলিন্ডা গেটস ফাউন্ডেশনের প্রতিনিধি ড. গ্যারি অ্যাটলিনসহ অন্যরা।

কর্মশালায় জানানো হয়, প্রচলিত পদ্ধতিতে একটি নতুন ধানের জাত উদ্ভাবন করতে সাত থেকে আট বছর সময় লাগলেও ট্রান্সফরমিং রাইস ব্রিডিংয়ের আধুনিক পদ্ধতি ব্যবহারের মাধ্যমে মাত্র তিন থেকে চার বছরের মধ্যেই নতুন ধানের জাত উদ্ভাবন সম্ভব হচ্ছে।



মন্তব্য