kalerkantho


৫০ লাখ টাকা ঘুষ সাধায় চায়না হার্বার কালো তালিকায়

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৭ জানুয়ারি, ২০১৮ ০৩:১০



৫০ লাখ টাকা ঘুষ সাধায় চায়না হার্বার কালো তালিকায়

ফাইল ছবি

কাজ পাওয়ার পরও 'চুরি করার' উদ্দেশ্যে সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগের সচিবকে ৫০ লাখ টাকা ঘুষ সেধেছিল চীনের রাষ্ট্রায়ত্ত প্রতিষ্ঠান চায়না হার্বার ইঞ্জিনিয়ারিং। সচিব ঘুষ না নিয়ে মন্ত্রীদের তা জানিয়ে দেন। এই পরিপ্রেক্ষিতে চীনা কম্পানিটিকে বাংলাদেশ 'কালো তালিকাভুক্ত' করেছে বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত।

গতকাল সচিবালয়ে সাংবাদিকদের অর্থমন্ত্রী বলেন, 'চায়না হার্বার যোগাযোগ সচিবকে ৫০ লাখ টাকা ঘুষ দিতে চেয়েছিল। সচিব বিষয়টি আমাদের জানিয়েছেন। এ জন্য কম্পানিটিকে কালো তালিকাভুক্ত করা হয়েছে। তারা বাংলাদেশে আর কোনো কাজ করতে পারবে না।'  

সার্ভিস লাইনসহ ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক চার লেনে উন্নীত করতে দুই বছর আগে চীনা কম্পানিটির সঙ্গে চুক্তি স্বাক্ষর করে সরকার। চীনা অর্থায়নে এ সড়ক নির্মাণের কথা ছিল। গত সোমবার অর্থমন্ত্রী জানিয়েছিলেন, কম্পানিটিকে কালো তালিকাভুক্ত করায় চীন ওই প্রকল্পে আর অর্থায়ন করবে না। তাই ১৭ হাজার কোটি টাকার ওই প্রকল্প নিজস্ব অর্থায়নেই বাস্তবায়ন করা হবে।

চায়না হার্বার বাংলাদেশে আরো কিছু প্রকল্পের কাজ পেয়েছে। কালো তালিকাভুক্ত হওয়ার কারণে ওই সব প্রকল্প বাস্তবায়নের কাজ তারা করতে পারবে কি না-এমন প্রশ্নে অর্থমন্ত্রী বলেন, 'সেটা দেখা যাক, কী করা যায়। সাধারণ নিয়ম হলো, কালো তালিকাভুক্ত মানেই কালো তালিকাভুক্ত।'

মুহিত বলেন, কোনো কাজ পাওয়ার জন্য চায়না হার্বার ঘুষ সাধেনি। এই সড়কের কাজ তারা আগেই পেয়ে গেছে। 'আমার মনে হয়, খুশি করার জন্য ঘুষ দিতে চেয়েছিল, কাজে চুরি করবে।' অর্থমন্ত্রী বলেন, 'আমি ওই সচিবকে নিয়ে গর্ববোধ করি।'


মন্তব্য