kalerkantho


বইমাস ২০১৮

রিমঝিম আহমেদের কবিতার বই 'কয়েক লাইন হেঁটে'

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৫ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ১৫:৫৪



রিমঝিম আহমেদের কবিতার বই 'কয়েক লাইন হেঁটে'

দ্বিতীয় দশকের কবি তিনি, কম লেখেন। তবে যতটুকু লেখেন, মেপে। শিল্পী যেমন তুলির সহজ টানে ছবি আঁকেন, তেমনি কবি রিমঝিম আহমেদ ভাষার সরল প্রস্তাবনায় লেখেন কবিতা। মনস্তাত্ত্বিক চেতনাবাদ আর দৃশ্যবর্ণনার নির্ভেজাল প্রয়োগ তাঁর কবিতাকে পাঠকের পক্ষে অনুকূল করেছে। অনেকে বলেন, রিমঝিমের কবিতা জটিল অবয়বে থাকে। তাঁদের জন্য কবি বলেন, জটিলতা তো প্রাণশক্তিরই দ্যোতনা। 

এবারের বইমেলায় প্রকাশিত হয়েছে কবি রিমঝিম আহমেদের দ্বিতীয় কবিতার বই 'কয়েক লাইন হেঁটে'। জেব্রাক্রসিং থেকে প্রকাশিত বইটি এখন বাজারে। বইটির প্রচ্ছদ করেছেন নির্ঝর নৈঃশব্দ।

নতুন কবিতার বই ও অন্যান্য প্রসঙ্গে কথা হয় কবি রিমঝিম আহমেদের সঙ্গে। লেখার শুরু কবে থেকে জানতে চাইলে কবি বলেন, কবিতা কখন থেকে লিখতে শুরু করেছি সে হিসেব জানি না আজো, তবে লিখতে শিখেছি যখন, তখন থেকেই লেখার শুরু। স্কুলের খাতায়, ডায়রিতে…। সেই লেখাগুলো ছিল আমার মানুষবিচ্ছিন্নতার একমাত্র কৌশল- সচেতনভাবে হোক বা অবচেতনে। 

নতুন কাব্যগ্রন্থ প্রসঙ্গে কবির অভিব্যক্তি, 'কয়েক লাইন হেঁটে' নামটা ভাবার আগেও কত কত নাম ভেবেছি! পরে এটাই চূড়ান্ত হলো। কবি জয়ন্ত জিল্লুকে কৃতজ্ঞতা বইয়ের নাম বাছাইয়ে এগিয়ে আসবার জন্য। আমার ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতার গল্প জড়িয়ে আছে এ নামের সাথে, হয়তো বলছি না, হয়তো কবিতাতে-ই সব বলা হয়ে যাচ্ছে। কিছু ঘটতে অনেকদূর যেতে হয় না মানুষের। কিছু তো থাকে অনিবার্য ভবিতব্য। এখানে দূরত্ব মূলত সময়। কয়েক পা হাঁটলে আমরা কারো দেখা পাই, পাশাপাশি হাঁটি, মনের কাছে পৌঁছই, ফের বিচ্ছেদের কাছে। সেটা যদি অভ্যাসও ধরে নিই, প্রতিদিনের জমে যাওয়া কয়েক লাইন আমাদের উত্থানে যেমন ভূমিকা রাখে, তেমনি পতনেও, নিমজ্জিত করতে পারে অকূল পাথারেও।

নিজের প্রথম বই প্রসঙ্গে রিমঝিম বলেন, 'লিলিথের ডানা' আমার প্রথম বই। সবরকমের কবিতা-ই আছে সেটাতে। প্রথম বই দিয়ে নিজেকে জানান দেওয়ার একটা সূক্ষ্মবাসনা ছিল। কিন্তু এবারের বইটা বাঁকঘুরে অন্যপথে চলার শুরু। জার্নি তো সুদূরের। এই বইয়ে টানা গদ্যের কোনো কবিতা নেই। বাংলা ছন্দের প্রধান তিনটি শাখায় লেখা কবিতাগুলো ঠাঁই পেয়েছে এখানে। প্রথম ভাবনা ছিল, দীর্ঘ কবিতাগুলো দিয়ে বই করা হবে। পরে দীর্ঘকবিতা কয়েকটা রেখে, অন্যান্য কবিতার সাথে মিলিয়ে মলাটবন্দি হচ্ছে।



মন্তব্য