kalerkantho


শেষভাগে জমে উঠেছে বইমেলা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ২২:৫৫



শেষভাগে জমে উঠেছে বইমেলা

মাসব্যাপী অমর একুশে গ্রন্থমেলার শেষভাগে এসে আরও জমে উঠেছে লেখক-প্রকাশক ও পাঠকের মিলনমেলা। আজ বৃহস্পতিবার ভোররাতে ঢাকায় হয়েছে ফাল্গুনের বৃষ্টি।

মেলাপ্রাঙ্গনে জমেছিল পানি, কোথাও থকথকে কাদা। তবুও কমেনি বইপ্রেমীদের ভিড়। মেলার দুয়ার খোলার অনেক আগেই বাংলা একাডেমি ও সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের ফটকে দেখা যায় দীর্ঘ লাইন।

মেলায় চলছে বই বেচাকেনার উৎসব। কোন বইগুলো সবচেয়ে বেশি বিক্রি হচ্ছে সে বিষয়ে কর্তৃপক্ষের হিসাব পাওয়া না গেলেও স্টলকর্মীদের কথায় উঠে এসেছে ক্রেতাদের আগ্রহে থাকা বইগুলোর নাম। প্রকাশনা থেকে প্রকাশিত হুমায়ূন আহমেদের মা আয়েশা ফয়েজের লেখা ‘শেষ চিঠি’ ও ইয়াসমীন হকের লেখা ‘সাস্টের ২২ বছর’ বই দুটিও বেশি বিক্রি হওয়া বইয়ের তালিকায় রয়েছে।

বাংলা একাডেমি থেকে প্রকাশিত বইয়ের মধ্যে ‘ইংরেজি থেকে বাংলা অভিধান’ ও ‘আধুনিক বাংলা অভিধান’ বিক্রি হচ্ছে অনেক। আগামী থেকে প্রকাশিত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার লেখা ‘নির্বাচিত প্রবন্ধ’ আছে সবচেয়ে বেশি বিক্রি হওয়া বইগুলোর মধ্যে।

অন্যপ্রকাশ থেকে প্রকাশিত হুমায়ূন আহমেদের ‘মিসির আলী দশ’ সংকলনটি আছে বেশি বিক্রিত বইয়ের তালিকায়।

একই প্রকাশনী থেকে প্রকাশিত প্রয়াত এই কথা সাহিত্যিকের ‘দেয়াল’ ও ‘জোছনা ও জননীর গল্প’ এখনও অনেক বিক্রি হওয়ার কথা বলেছেন স্টলকর্মীরা। অনন্যা থেকে প্রকাশিত ইমদাদুল হক মিলনের মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক উপন্যাস ‘নয়মাস’র কাটতিও বেশ।

অবসর থেকে প্রকাশিত হরিশংকর জলদাসের উপন্যাস ‘অর্ক’ এবং রকিব হাসানের ‘ভ্যাম্পায়র’র বিক্রিও বেশ। শব্দশৈলী থেকে প্রকাশিত ছাত্রলীগের সভাপতি সাইফুর রহমান সোহগের লেখা ‘ছাত্রলীগের ইতিহাস বাংলাদেশের ইতিহাস’ বইটি বেশ চলছে। ঐতিহ্য থেকে প্রকাশিত বুলবুল সরওয়ারের ‘স্বপ্নভ্রমণ জেরুসালেম’ বইটিও বেশ বিক্রি হচ্ছে বলে স্টলকর্মীরা জানিয়েছেন। ।


মন্তব্য