kalerkantho


একটু নতুন এই ঈদে

ফ্যাশনে ‘নতুন’ বলে কিছু নেই। ঘুরে আসে পুরনোই। তবু ফ্যাশন-সচেতনরা মুখিয়ে থাকেন, কী আছে নতুন জানার জন্য। যা কিছু নতুন এই ঈদে, ডিজাইনারদের সঙ্গে কথা বলে তার খোঁজ জানাচ্ছেন জিনাত জোয়ার্দার রিপা

২১ মে, ২০১৮ ০০:০০



একটু নতুন এই ঈদে

মডেল : মাসুদা বিজলী, শাড়ি : কে ক্রাফট, কটি : ইয়েলো, সাজ : রেড বিউটি স্যালন, ছবি : কাকলী প্রধান

‘পাশ্চাত্যের সঙ্গে প্রাচ্যের মেলবন্ধন গত কয়েক বছরই চলছে। এবার ঈদে সে ফিউশনে ভিন্ন মাত্রা এনেছে পোশাকের ম্যাটেরিয়াল ও কাট। কয়েক বছর ধরে ব্যবহৃত হওয়া অতিরিক্ত অনুষঙ্গ এবার কিছুটা কমে এসেছে’—বললেন বিবিয়ানার ডিজাইনার লিপি খন্দকার।

বিশ্বরঙের ডিজাইনার বিপ্লব সাহা জানালেন, এবার ঈদে প্যাটার্ননির্ভর নকশা বেশি করা হয়েছে। স্টাইলের সঙ্গে এখন সবাই আরামের দিকটাও মাথায় রাখেন। নকশা ও ম্যাটেরিয়ালে গুরুত্ব পেয়েছে তা। পশ্চিমা নকশায় ট্রেন্ডি লুক দেওয়া হয়েছে। এবারের ফ্যাশন ট্রেন্ডকে এককথায় বলা যায় মিক্স-ম্যাচ।

 

কামিজের চিরায়ত কাট গেছে বদলে। দৈর্ঘ্যে লম্বা এবারও আছে। তবে সালোয়ারের জায়গায় তাতে জুড়েছে ম্যাক্সি কাট লোয়ার।

কটির ফ্যাশন গত বছর থেকেই জনপ্রিয়তা পেয়েছে। এবার সেই কটি আর আলাদা পোশাক থাকছে না। বেশির ভাগ কামিজ বা কুর্তিতে কটি যুক্ত হয়ে গেছে জামার সঙ্গেই।

পোশাক : লা রিভ 

 

 ঠিক যেন শার্ট নয়, আবার শার্টও। কলারে শার্ট কাট। লম্বার ঝুল কামিজের। তাতে আবার লোয়ার কাটে আছে ভিন্নতা। কখনো শার্টের সিম্পল স্ট্রেইট কাট, কখনো পাঞ্জাবির লোয়ার কাট। ভ্যালু অ্যাড করেছে সুতার বুনন।

পোশাক : লা রিভ

 

 ছেলেদের পাঞ্জাবির কাটে এসেছে প্রাচ্যের লুক। স্ট্রেইট কাট পাঞ্জাবির চল এই ঈদে নেই বললেই চলে। লেয়ার কাট এসেছে লোয়ার স্টাইলে। পাঞ্জাবিতে আলাদা স্কার্ফ যাদের স্টাইল ছিল, তাদের জন্য পোশাকেই জুড়ে গেছে স্কার্ফ। গলার নকশাতেও করা হয়েছে নানা নিরীক্ষা।

না শাড়ি, না কামিজ—একেবারে আনকোরা। কামিজের নিচে সালোরের বদলে শাড়ির কুচি যুক্ত হয়েছে লোয়ার হিসেবে। কখনো ভিন্নতা মিলছে ধুতি কাটেও।

বাড়তি নকশার জায়গা দখল করেছে উন্নত ম্যাটেরিয়াল।

ছবি : বিশ্বরঙ

 

শুধু শাড়ি পরলে আর ফ্যাশনেবল হয়ে ওঠা যাচ্ছে না যেন! ব্লাউজে মনকাড়া নকশাও এখন পুরনো লাগছে। সেই ব্লাউজই যেন নয়া রূপ পেয়েছে কটিতে। লম্বায় কখনো তা কোমর ছাড়িয়েছে, কখনো বা ব্লাউজের দৈর্ঘ্যেই মানিয়ে যাচ্ছে।

কটি : ইয়েলো

 



মন্তব্য