kalerkantho

টিপস

১ অক্টোবর, ২০১৭ ০০:০০



টিপস

ঠাণ্ডা দুধের সর হাতে মাখলে হাত জ্বলবে না

        রান্নাঘর আর খাবার ঘরে মাছির উপদ্রব এড়াতে নিমপাতার গোছা কয়েকটি স্থানে রেখে দিন।

        মাছ বেশি ভাজা হলে কিংবা রসুন বেশি ব্যবহার করলে পুরো বাড়িতেই গন্ধ ছড়ায়।

তাই রান্না শুরুর আগেই একটা বাটিতে ভিনেগার  ঢেলে চুলার কাছে রাখুন। ভিনেগার গন্ধ শুষে নেবে।

        ফ্রিজে দুর্গন্ধ হলে একটি পাতিলেবুর টুকরা করে রেখে দিন। তাতে গন্ধ চলে যাবে। ফ্রিজের খাবার সব সময় ঢেকে রাখুন।

        বাসনে মাছের গন্ধ হলে কয়েক ফোঁটা ভিনেগার ছিটিয়ে ধুয়ে নিলে গন্ধ থাকবে না। আর রান্নাঘরে বা খাবার ঘরে বেশি মাছি হলে নিমপাতা থেঁতলে ওই ঘরের দু-চার জায়গায় রেখে দিলে মাছি আর আসবে না।

        মাছ-মাংস যদি ফ্রিজে বেশি দিন রাখতে হয়, তাহলে ভালো করে পানি ঝরিয়ে অল্প তরল দুধ মেখে নিন। তারপর জিপলক প্যাকেট ভরে রাখলে অনেক দিন ভালো থাকবে।

        মরিচ বাটলে বা কাটলে হাত জ্বালা কমাতে ঠাণ্ডা দুধের সর লাগান। জ্বালা কমে যাবে। হাত পুড়ে গেলেও বেশ কাজে দেবে ঠাণ্ডা দুধ। ফোসকা পড়বে না।

         কাঁচকলা কাটলে হাতে দাগ হয়ে যায়। কাঁচকলা কিছুক্ষণ পানিতে ডুবিয়ে রেখে হাতে যেকোনো তেল মেখে কাটলে দাগ হবে না।

         রান্নাঘরের সিংক কিংবা বেসিনের পাইপ আটকে গেলে পাইপের মুখে দুই চা চামচ ব্লিচিং পাউডার ঢেলে দিন। এরপর এক ঘণ্টা অপেক্ষা করে গরম পানি ঢালুন। পরিষ্কার হয়ে যাবে।

        গরম পানির ফ্লাক্স কয়েক দিন ব্যবহার না করলে ভেতরে গন্ধ হয়ে যেতে পারে। ফ্লাক্সের ভেতরে দুই চামচ চিনি অল্প কুসুম গরম পানি দিয়ে ভালো করে ঝাঁকিয়ে নিন। গন্ধ থাকবে না।

        রান্নাঘরে পোকামাকড়ের উপদ্রব কমাতে রাতের বেলায় কেবিনেটের কোনা এবং স্যাঁতসেঁতে জায়গাগুলোতে ব্লিচিং পাউডার ছিটিয়ে রাখুন। উপকার পাবেন।

     প্রেশার কুকারে মরিচা ধরলে লেবুর খোসা ভালো করে ঘষুন। তারপর খোসাসহ পানি দিয়ে ফুটিয়ে নিন। মরিচা থাকবে না।

  ঘি বেশি দিন ঘরে থাকলে সুঘ্রাণ নষ্ট হয়ে যায়। ঘিয়ের কৌটায় এক টুকরা গুড় রেখে দিন। দীর্ঘদিন গন্ধ বজায় থাকবে।


মন্তব্য