kalerkantho


ওবায়দুল কাদের বললেন

তারেকের অঙ্গুলিহেলনে চলবে নতুন ঐক্যজোট

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৭ অক্টোবর, ২০১৮ ১২:৫৩



তারেকের অঙ্গুলিহেলনে চলবে নতুন ঐক্যজোট

বিএনপিকে নিয়ে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট নামে নতুন জোট গঠনের সমালোচনা করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেছেন, ড. কামাল হোসেন নিজে ভালো করেই জানেন লন্ডন থেকে তারেক রহমানের অঙ্গুলি হেলনেই এই ঐক্যজোট চলবে। ক্ষমতায় যাওয়ার জন্য নয়, বরং শেখ হাসিনাকে ক্ষমতা থেকে হটানোর জন্য ড. কামাল বিএনপিকে নিয়ে ঐক্য করেছেন। উদ্দেশ্য খারাপ বলেই জাতীয় ঐক্যের শুরুতেই ধাক্কা খেয়েছে—এমন মন্তব্য করে তিনি বলেন, খেলা শুরু হতে না হতেই ভাঙনের বাজনা শুরু হয়েছে।

গতকাল মঙ্গলবার আলাদা দুটি অনুষ্ঠানে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন। সকালে রাজধানীর বনানীতে নবনির্মিত বিআরটিএ ভবন পরিদর্শনের পর তিনি বলেন, জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট আসলে কে চালাবে? মূল দল হচ্ছে বিএনপি। আর বিএনপি চালায় কে? তারেক রহমান লন্ডন থেকে দলেরও নেতৃত্ব দিচ্ছেন এবং এই জোটেরও নেতৃত্বের কলকাঠি নাড়বেন তিনি।

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘তারেক রহমানের মতো যাবজ্জীবন দণ্ডপ্রাপ্ত ব্যক্তির নেতৃত্ব মেনে নিতে কামাল হোসেনের আপত্তি আছে বলে মনে করি না। এই জোট থেকে এরই মধ্যে বদরুদ্দোজা চৌধুরীকে বের করে দেওয়া হয়েছে। এ ধরনের ঐক্য তেলে আর জলে মেশানোর অপচেষ্টা মাত্র, এই অপচেষ্টা ব্যর্থ হবে।’

ওবায়দুল কাদের মনে করেন, ড. কামাল হোসেন গণফোরাম করেও সাড়া পাননি, এখন বিএনপির সঙ্গে ঐক্য করেও সাড়া পাবেন না।

নির্বাচন কমিশনের বৈঠক থেকে একজন নির্বাচন কমিশনার বৈঠক বর্জন করার বিষয়টি দৃষ্টি আকর্ষণ করলে ওবায়দুল কাদের বলেন, তাঁকেও মহামান্য রাষ্ট্রপতি সার্চ কমিটির মাধ্যমে নিয়োগ দিয়েছেন। বিএনপির কথামতোই করা হয়েছে। আর নোট অব ডিসেন্ট যে কেউ দিতে পারে। নিরাপত্তা পরিষদে পাঁচজন সদস্য আছেন এর মধ্যে একজন বিরোধিতা করতেই পারেন।

গতকাল সন্ধ্যায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের জগন্নাথ হলে শারদীয় দূর্গা উৎসব পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘জগাখিচুড়ি ঐক্য জাতীয় ঐক্য নয়। জগাখিচুড়ি ঐক্য হলো ভাঙনের তাণ্ডব।’

এ সময় কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি সঞ্জিত চন্দ্র দাস, সাধারণ সম্পাদক হোসাইন সাদ্দাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।



মন্তব্য