kalerkantho


বিএনপিতে কোনো গণতন্ত্রের চর্চা নেই : ওবায়দুল কাদের

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৮ ডিসেম্বর, ২০১৭ ১৬:৪৪



বিএনপিতে কোনো গণতন্ত্রের চর্চা নেই : ওবায়দুল কাদের

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপির ভিতরে কোনো গণতন্ত্রের চর্চা নেই। মেয়র প্রার্থী হিসেবে বাবা ছেলের নাম ঘোষণা করে এটা কেমন গণতন্ত্র।

আজ বৃহস্পতিবার বঙ্গবন্ধু এভিনিউস্থ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে শীতবস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগ এই শীতবস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। 

ওবায়দুল কাদের বলেন, আজকে দেখলাম বাবা (আব্দুল আওয়াল মিণ্টু) তার ছেলেকে (তাবিথ আওয়াল) ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনে বিএনপির মেয়র প্রার্থী ঘোষণা করেছে। বাবা বিএনপির নেতা, তিনি তার ছেলেকে মনোনয়ন দিয়েছেন। যেই ছেলের নাম প্যারাডাইজ পেপারে এসেছে। বাবা ছেলের নাম ঘোষণা করে, এটা কেমন গণতন্ত্র? বিএনপিতে কোন গণতন্ত্র নেই।

তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের প্রার্থী হতে হলে আমাদের মনোনয় বোর্ড থেকে নাম আসবে। আমি পার্টির সাধারণ সম্পাদক, হঠাৎ করে বলে দিলাম যে আওয়ামী লীগের সে প্রার্থী, এটা আমাদের দলে হবে না। 

মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল হাসনাতের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী, মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ, সহ-সভাপতি নুরুল আমিন রুহুল, সাংগঠনিক সম্পাদক হেদায়েতুল ইসলাম স্বপন ও গোলাম আশরাফ তালুকদার, কাজী মোর্শেদ কামাল, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক মোঃ আখতার হোসেন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

নির্বাচনকে কেন্দ্র করে মনোনয়ন প্রতিযোগিতায় অসুস্থ কোন্দলে জড়ালে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়া হবে জানিয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, আওয়ামী লীগ একটা বড় দল। বড় দলের কিছু কিছু সমস্যা থাকে। কিন্তু আমাদের দলের সবচেয়ে বড় সৌন্দর্য্য হচ্ছে, আমাদের নেত্রী শেখ হাসিনা আমাদের পার্টির সভাপতি। তাঁর নেতৃত্বে আমাদের দল ঐক্যবদ্ধ।

তিনি বলেন, আমাদের যদি কোন মেজর সমস্যা হয় এবং আমরা যদি ব্যর্থ হই তাহলে আমাদের সভাপতি হস্তক্ষেপে সমস্যা সমাধান হয়। আমাদের পার্টিতে অনাকাঙ্খিত কিছু ঘটতে আমরা দিচ্ছি না। আমাদের দলের একজন অন্যায় করবে শাস্তি পাবে না এটা হয় না। 

ওবায়দুল কাদের বলেন, নির্বাচনকে সামনে রেখে সুস্থ প্রতিযোগিতা থাকবে। কোন প্রার্থী আগ্রহ প্রকাশ করতেই পারে। কোন জায়গায় ১০-১৫ জন প্রার্থী আছে, থাকতে পারে। কিন্তু দলীয় মনোনয়ন দেবেন আমাদের পার্টির সভাপতি শেখ হাসিনা সেটা মনোনয়ন বোর্ডের মাধ্যমে।



মন্তব্য