kalerkantho


আমরা দেশে বিশৃঙ্খলা করতে চাই না: খসরু

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৭ নভেম্বর, ২০১৭ ১৪:২৩



আমরা দেশে বিশৃঙ্খলা করতে চাই না: খসরু

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী বলেছেন, আওয়ামী লীগ যদি ৫ জানুয়ারির নির্বাচন দেশে আবার করতে চায়, তাহলে যেকোনো মূল্যে আওয়ামী লীগকে প্রতিহত করা হবে। আমরা দেশে বিশৃঙ্খলা করতে চাই না।

কেউ যদি বিশৃঙ্খলা করে, তাহলে দেশের জনগণকে পাশে রেখে আমরা তাদের প্রতিহত করব। আজ শুক্রবার সকালে জাতীয় প্রেসক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে তারেক রহমানের ৫৩তম জন্মদিন উপলক্ষে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে খসরু এ মন্তব্য করেন। জাতীয় নাগরিক সংসদ নামের একটি সংগঠন আয়োজিত এই আলোচনায় খসরু বলেন, আগামী নির্বাচনে সেনা মোতায়েন ছাড়া কোনোভাবে নির্বাচন হবে না।

সেনাবাহিনীকে নির্বাচনের আগে ম্যাজিস্ট্রেসি ক্ষমতা দিতে হবে, অন্যথায় নির্বাচন হবে না। কোনো দেশে সংসদ বহল রেখে কোনো সংসদ নির্বাচন হয় না। এ দেশেও ৫ জানুয়ারির মতন নির্বাচন আর হবে না এবং হতে দেওয়া যাবে না। ক্ষমতাসীন দলের উদ্দেশে বিএনপির জ্যেষ্ঠ এই নেতা বলেন, সেনা মোতায়েন ছাড়া দেশে সুষ্ঠু কোনো নির্বাচন হবে না। আমীর খসরু আরো বলেন, আওয়ামী লীগ কেন সেনাবাহিনী মোতায়েনের বিরুদ্ধে আমরা বুঝতে পারছি। তারা হয়তো বা এই আশঙ্কা করছেন যে, সেনাবাহিনী থাকলে ভোট কেন্দ্র দখল করা যাবে না, আগের রাতে ভোটের বাক্স ভরা যাবে না। একটা সুষ্ঠু নির্বাচন প্রতিফলিত হবে।

সেনাবাহিনীকে ম্যাজেস্ট্রেসি ক্ষমতা দেয়া হলে মার্শাল ল আসবে বলে যারা এমন দাবি করেন তাদের জ্ঞান পাপী হিসেবে উল্লেখ করে বিএনপির এই নেতা বলেন, ম্যাজেস্ট্রেসি ক্ষমতা মানে বিচারিক ক্ষমতা দেয়া নয়। পুলিশেরও ম্যাজেস্ট্রেসি ক্ষমতা রয়েছে। পুলিশ কি বিচার করে? করে না। সেই রকম সেনাবাহিনীকেও ম্যাজিস্ট্রেসি ক্ষমতা দিতে হবে যাতে তারা আইন শৃঙ্খলা রক্ষা করতে পারে, জনগণকে রক্ষা করতে পারে।

নির্বাচনের আগে বর্তমান সংসদ ভেঙ্গে দেয়ার পাশাপাশি লেভেল প্লেইং ফিল্ড তৈরি করার দাবিও জানান বিএনপির এই কেন্দ্রীয় নেতা। আলোচনা সভায় জাতীয় নাগরিক সংসদের সভাপতি খালেদা ইয়াসমিন সভাপতিত্ব করেন। এতে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বিএনপিপন্থী চিকিৎসকদের সংগঠন ডক্টরস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (ড্যাব) সভাপতি জাহিদ হাসান, নেতা ফরিদ উদ্দিন আহমেদ প্রমুখ।

 


মন্তব্য