kalerkantho


'প্রধানমন্ত্রী জঙ্গিবাদ মোকাবেলা করে বিশ্বের কাছে দেশকে নিরাপদ হিসেবে তুলে ধরেছেন'

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৭:২০



'প্রধানমন্ত্রী জঙ্গিবাদ মোকাবেলা করে বিশ্বের কাছে দেশকে নিরাপদ হিসেবে তুলে ধরেছেন'

আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল-আলম হানিফ এমপি বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাঁর বিচক্ষণ নেতৃত্বের মাধ্যমে জঙ্গিবাদ মোকাবেলা করে বিশ্বের কাছে বাংলাদেশকে নিরাপদ দেশ হিসেবে তুলে ধরেছেন।
তিনি বলেন,‘কয়েকটি জঙ্গি হামলার প্রেক্ষিতে দেশ আর জঙ্গিবাদের হাত থেকে রক্ষা পাবে না বলে বিশ্ববাসীর অনেকে ধারণা করেছিল। কিন্তু প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাদের এ ধারণাকে ভুল প্রমাণ করে দেশকে বিশ্ববাসীর কাছে নিরাপদ দেশ হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করেছেন। ’
আওয়ামী লীগের এ নেতা আরো বলেন, ‘সারা বিশ্ব যখন জঙ্গিবাদে আক্রান্ত্র ও বিপর্যস্ত তখন আমাদের দেশের মত একটি দেশে জঙ্গিবাদ মোকাবেলা করা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অসাধারণ নেতৃত্বের জন্যই সম্ভব হয়েছে। ’
মাহবুব-উল-আলম হানিফ আজ দুপুরে নগরীর কাকরাইলের একটি অভিজাত হোটেলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জম্মদিন এবং গণসংবর্ধনাা সফল করার জন্য ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের এক যৌথসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন।
জাতিসংঘের সাধারণ অধিবেশনে অসামান্য ভূমিকা পালনের জন্য আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে এ গণসংবর্ধণা দেওয়া হবে।
ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল হাসনাতের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের কৃষি ও সমবায় বিষয়ক সম্পাদক ড. আব্দুর রাজ্জাক এমপি, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক এডভোকেট আফজাল হোসেন, কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য সুজিত রায় নন্দী ও মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ।
সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি আবু আহম্মেদ মন্নাফী, নজিবুল হক সরদার, আওলাদ হোসেন, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক কামাল চৌধুরী ও আব্দুল হক সবুজ।
সভা পরিচালনা করেন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক আকতার হোসেন ও উপ-প্রচার সম্পাদক মামুনুর রশিদ শুভ্র।
মাহবুব-উল-আলম হানিফ বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিএনপি-জামায়াতের ধ্বংস করে দেওয়া দেশকে বিশ্বের বুকে মর্যাদার আসনে প্রতিষ্ঠিত করায় তাকে এ গণসংবর্ধনা দেওয়া হবে।
তিনি বলেন, বিএনপি-জামায়াত ক্ষমতায় থাকার সময় দেশকে দুর্নীতি আর জঙ্গিবাদের অভয়রণ্য বানিয়েছিল । পশ্চিমা বিশ্ব এ জন্য দেশকে কালো তালিকাভুক্ত করেছিল।
হানিফ বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশকে সে জায়গা থেকে বিশ্বের কাছে মর্যাদাপূর্ণ জায়গায় নিয়ে গেছেন। বিশ্বের অনেক দেশ এখন বাংলাদেশকে উন্নয়নের রোলমডেল হিসেবে বিবেচনা করে।
নেপালের ভূমিকম্পের সময় ত্রাণ সহায়তা দানের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, এক সময়ের বিদেশী সাহায্যনির্ভর দেশ এখন বিভিন্ন দেশকে সাহায্য প্রদান করে এবং খাদ্য ঘাটতির দেশ বর্তমানে খাদ্য রপ্তানীর দেশে পরিণত হয়েছে।
শাহে আলম মুরাদ বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে ব্যানার ও ফেস্টুনে বঙ্গবন্ধু, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও সজীব ওয়াজেদ জয়ের ছবি ছাড়া আর কারো ছবি থাকবে না।
গত জাতীয় শোক দিবসের সকল ব্যানার ও ফেস্টুনে বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারের সদস্যদের ছবি ছাড়া কোন ছবি ব্যবহার না করায় নেতা-কর্মীদের ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গণসংবর্ধনাকে ব্যাপকভাবে সফল করার জন্য হাতি-ঘোড়া যেমন থাকবে তেমনি ও বাদ্যযন্ত্রেরও ব্যবস্থা করা হবে।


মন্তব্য