kalerkantho

শনিবার । ১০ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৯ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


'খালেদা ও তারেকের পুনঃনির্বাচন দুই আসামির স্বীয় পদে রাখার একটা নাটক'

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৭ মার্চ, ২০১৬ ১৯:৩১



'খালেদা ও তারেকের পুনঃনির্বাচন দুই আসামির স্বীয় পদে রাখার একটা নাটক'

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিএনপির চেয়ারপার্সন পদে বেগম খালেদা জিয়া ও সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান পদে তারেক রহমানের পুনঃনির্বাচন দুই আসামিকে স্বীয় পদে রাখার নাটক বলে অভিহিত করেছেন।
প্রধানমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগ সভাপতি বলেন, ‘নাটকটা ভালো হলো, নির্বাচিত দু’জনই মামলার আসামি।

একজন এতিমের টাকা মেরে দেয়া মামলার আসামি। আরেকজন মানুষ হত্যার, গ্রেনেড হামলার আসামি। যার নাম আবার ইন্টারপোলের ওয়ান্টেড লিস্টে রয়েছে। ’
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজ রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ আয়োজিত ঐতিহাসিক ৭ মার্চ উপলক্ষে আয়োজিত জনসভায় প্রধান অতিথির ভাষণে এ কথা বলেন।
প্রধানমন্ত্রী তাঁর বক্তৃতায় বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণকে পৃথিবীর অন্যতম শ্রেষ্ঠ ভাষণ হিসেবে আখ্যায়িত করে বলেন, ‘বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ আড়াই হাজার বছরের মধ্যে শ্রেষ্ঠ ভাষণ। .. আজ ৪৫ বছর পরেও বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণের আবেদন বাঙালির কাছে অটুট আছে। ’
লেখক ও ইতিহাসবিদ জেকব এফ ফিল্ড’-এর বিশ্বসেরা ভাষণ নিয়ে লেখা গ্রন্থে এই ভাষণ স্থান পেয়েছে উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, অসংখ্য ভাষায় অনুদিত বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ বিশ্ববাসীর কাছে বিশেষ করে বিশ্বের মুক্তিকামী মানুষের কাছে আলোর দিশারীতে পরিণত হয়েছে।
জাতীয় সংসদের উপনেতা ও সংগঠনের প্রেসিডিয়াম সদস্য সৈয়দা সাজেদা চৌধুরীর সভাপতিত্বে জনসভায় আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু, উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ, প্রেসিডিয়াম সদস্য কৃষিমন্ত্রী বেগম মতিয়া চৌধুরী, প্রেসিডিয়াম সদস্য ও সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী শেখ ফজলুল করিম এমপি, প্রেসিডিয়াম সদস্য গণপূর্ত মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন, স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম, আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জন প্রশাসন মন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম বক্তৃতা করেন।
আওয়ামী লীগের কেন্দ্র্রীয় ও মহানগর নেতৃবৃন্দের মধ্যে আরো বক্ততা করেন কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল-আলম হানিফ এমপি, সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডা. দিপু মনি এমপি ও জাহাঙ্গীর কবির নানক এমপি, সাংগঠনিক সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, এ কে এম রহমতুল্লাহ এমপি, মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বীর বিক্রম, খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম, ঢাকা সিটি কর্পোরেশন দক্ষিণের মেয়র সাঈদ খোকন, ঢাকা সিটি কর্পোরেশন উত্তরের মেয়র আনিসুল হক প্রমুখ।
কেন্দ্রীয় নেতা অসীম কুমার উকিল এবং সাবেক পরিবেশ ও বনমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ জনসভা পরিচালনা করেন।


মন্তব্য