kalerkantho

শনিবার । ১০ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৯ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


তারকার রান্না

সবার মতো তারকারাও ঈদে রাঁধবেন আপনজন আর অতিথিদের জন্য। পাঠকের জন্য রইল তাঁদের স্পেশাল রেসিপি

৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



তারকার রান্না

সেমাই উইথ ডিমের হালুয়া

বিজরী বরকতউল্লাহ

অভিনেত্রী ও নৃত্যশিল্পী

 

শুধু ঈদে নয়, শুটিং না থাকলে আমি নিজেই বাসার সবার জন্য রান্না করি। কোরবানির ঈদের রান্নার কথা বললে গরুর মাংসের নানা পদের কথা বলতে হয়।

আমার রান্না করা গরুর মাংসের রেজালাটা বাসার সবাই পছন্দ করে। আর মিষ্টি খাবারের মধ্যে  সেমাই আর ডিমের হালুয়া মিক্সড করে একটা খাবার রান্না করি, যেটা আমার স্পেশাল মেন্যু।  

 

রান্নার পদ্ধতি

প্রথমে দুধ, ডিম আর চিনি ব্লেন্ড করে নিতে হবে। এরপর চুলার আঁচে দিয়ে অনেকক্ষণ ধরে নাড়তে হবে। একসময় তা গুঁড়া গুঁড়া হালুয়ার মতো হয়ে যায়। একই সঙ্গে আরেকটি কড়াইতে পরিমাণমতো ঘি আর অল্প একটু পানি দিয়ে সেমাই ভাজতে হবে। সেমাইটা শক্ত হয়ে গেলে ডিম-দুধের হালুয়া ড্রাই সেমাইয়ের সঙ্গে মিশিয়ে দিতে হবে। পরিবেশনের সময় ওপরে বাদাম, কিশমিশ আর পেস্তা দিয়ে পরিবেশন করতে হবে।

 

সবার পছন্দ আমার বানানো চিকেন কোরমা

দীপা খন্দকার

মডেল ও অভিনেত্রী

 

বাড়ির সবার জন্য নিজের হাতে রান্না করার মজাই আলাদা। যেহেতু খুব বেছে বেছে কম কাজ করি, তাই পরিবার ও অতিথিদের নানা ধরনের খাবার রান্না করে খাওয়াতে পারি। আমার  এমন অনেক বন্ধুবান্ধব আছে, যারা ঈদের দিন আমার বাসায় আসে গরুর মাংস থেকে রেহাই পেতে। আমি তাদের লাউ, কুমড়া, গাজর, শিম দিয়ে এক ধরনের খিচুড়ি রান্না করে খাওয়াই। তবে আমার বরের পছন্দ চিকেন কোরমা। তাই প্রতি ঈদে তার জন্য এটা রান্না করি।

 

রান্নার পদ্ধতি

 চিকেন কোরমা রাঁধতে আমার দেশি মুরগি পছন্দ। এ ছাড়া কুচি পেঁয়াজ ও বাটা পেঁয়াজ লাগে। আর লাগে সামান্য পরিমাণ মরিচ গুঁড়া, চিনি, টক দই, আলুবোখারা, আদা, রসুন ও গরম মসলা।

প্রথমেই কুচি পেঁয়াজ ভেজে উঠিয়ে রাখতে হবে। এরপর মুরগির বড় বড় টুকরা ডুবো তেল দিয়ে একটু ভেজে নিতে হবে। ভাজা মাংসগুলো আদা, রসুন ও পেঁয়াজ বাটা, এক চা চামচ মরিচের গুঁড়া আর অল্প পানি দিয়ে কষিয়ে নিতে হবে। তারপর ২ চা চামচ চিনি আর আলুবোখারা দিয়ে আরেকটু পানি দিয়ে চুলায় অল্প আঁচে কিছুক্ষণ রাখতে হবে। এবার নামিয়ে পরিবেশন করুন মজাদার চিকেন কোরমা।

গ্রন্থনা : আল মাসিদ

কালা ভুনা রাঁধার ইচ্ছা আছে

সজল

অভিনেতা

 

কোরবানির ঈদে মায়ের হাতের গরুর মাংসের কালা ভুনার বিকল্প খুঁজে পাইনি এখনো। ছোটবেলা থেকেই কালা ভুনার ভক্ত আমি। মায়ের কাছ থেকে এই রান্নাটা করতে শিখেছি। দুই বছর ধরে বাসার সবাইকে এটা রেঁধে খাওয়াই। এ বছরও সময় পেলে কালা ভুনা রাঁধার ইচ্ছা আছে।

রান্নার পদ্ধতি

 

গরুর মাংসের সঙ্গে পেঁয়াজ বাটা, রসুন বাটা, আদা বাটা, বাদাম বাটা, সাদা সরিষা বাটা, মরিচ গুঁড়া, হলুদ গুঁড়া, জিরা গুঁড়া, ধনে গুঁড়া, টক দই, সরিষার তেল, লবণ ও গরম মসলা গুঁড়া মেখে মেরিনেট করে রেখে দিতে হবে দুই ঘণ্টা। এরপর মাংসে এক কাপ গরম পানি দিয়ে রান্না করতে হবে, সিদ্ধ না হওয়া পর্যন্ত।

আরেকটি ফ্রাইপ্যানে তেল গরম করে পেঁয়াজ কুচি, গরম মসলা টালা গুঁড়া, গোলমরিচ টালা গুঁড়া, জায়ফল টালা গুঁড়া, জয়ত্রী টালা গুঁড়া, কাঁচা মরিচ মাঝারি আঁচে ভাজতে হবে।

এরপর মাংস দিয়ে আরো কিছুক্ষণ নেড়ে কালো ভাজা ভাজা হলে  নামিয়ে নিতে হবে। অনেকটা সময় নিয়ে রাঁধতে হয়।

গরুর মাংসের দোপেয়াজা খুব ভালো রাঁধি

 

তানভিন সুইটি

মডেল ও অভিনেত্রী

 

কোরবানির ঈদে গরুর মাংসের পাশাপাশি আমার হাতের স্পেশাল সেমাইয়ের আইটেম সবার খুব পছন্দ। ঈদের দিন সকালে খুব দ্রুত এটা করে ফেলি। সবাই তো লাচ্ছা সেমাই দুধ দিয়ে নরম করে রান্না করে। কিন্তু আমি করি উল্টো। এমনিতেই লাচ্ছা সেমাই শক্ত, তার ওপর আমি কনডেন্সড মিল্ক দিয়ে ভাজি। সঙ্গে দুই ফোঁটা ঘিও দিই সুগন্ধের জন্য। এরপর অল্প একটু জাফরান দিই অন্য রকম কালার আনার জন্য। ব্যস, হয়ে গেল ড্রাই লাচ্ছা সেমাই। আর ঝাল আইটেমের মধ্যে গরুর মাংসের দোপেয়াজা আমার পরিবারের সবার পছন্দ। সেটা রেসিপি দিলাম।

 

রান্নার পদ্ধতি

 

মাংস টুকরা করে ধুয়ে নিয়ে এর মধ্যে পেঁয়াজ বাটা, পেঁয়াজ কুচি, আদা বাটা, রসুন বাটা, সাদা সরিষা বাটা, চিনাবাদাম বাটা, নারিকেল বাটা, ধনে গুঁড়া, জিরা গুঁড়া, মরিচ গুঁড়া, হলুদ গুঁড়া, গরম মসলা, টমেটো পিউরি, সরিষার তেল, ঘি, লবণ, তেজপাতা, মুখচেরা এলাচ, দারুচিনি টুকরা, লবঙ্গ, গোলমরিচ, মেথি, জায়ফল গুঁড়া, জয়ত্রী ও ঘি দিয়ে মাংস মেখে সামান্য পানি দিতে হবে। এবার ভারী সসপ্যান দিয়ে চুলায় বসিয়ে হালকা আঁচে রান্না করতে হবে। মাঝেমধ্যে নেড়ে দিতে হবে। মাংস সিদ্ধ হলে ঢাকনা দিয়ে কিছুক্ষণ দমে রাখতে হবে। মাখা মাখা ঝোল রাখতে হবে। মাংসের ওপরে তেল ভেসে উঠলে কাঁচা মরিচ, পেঁয়াজ বেরেস্তা এবং অল্প ঘি ছড়িয়ে নামিয়ে নিতে হবে।


মন্তব্য