kalerkantho

দুর্নীতি মামলা

খালাস পেলেন হাবিবুর রহমান মোল্লা

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৮ মার্চ, ২০১৯ ০৩:৪৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



খালাস পেলেন হাবিবুর রহমান মোল্লা

অবৈধ সম্পদ অর্জন ও সম্পদের তথ্য গোপনের অভিযোগে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)-এর দায়ের করা মামলায় বেকসুর খালাস পেয়েছেন ঢাকা-৫ আসনের সংসদ সদস্য ও আওয়ামী লীগ নেতা হাবিবুর রহমান মোল্লা। বৃহস্পতিবার ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-১০ এর বিচারক জয়নাল আবেদীন এই রায় দেন।

রায়ে বলা হয়েছে, আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় তাঁকে খালাস দেওয়া হলো। 
দুদকের পক্ষে আইনজীবী ছিলেন গোলাম হায়দার এবং আসামি পক্ষে ছিলেন অ্যাডভোকেট সৈয়দ মিজানুর রহমান।

ঘটনার বিবরণে জানা যায়, ২০০৭ সালের ২৯ মে এমপি হাবিবুর রহমান মোল্লা, তার স্ত্রী, সন্তান ও তার পক্ষে অন্য কারোর অর্জিত সম্পদের হিসাব দাখিল করতে নোটিস দেয় দুদক। একই বছরের ১০ জুন তিনি নিজ স্বাক্ষরে দুদকের সচিব বরাবর হিসাব দাখিল করেন। পরে দুদক অনুসন্ধানে জানতে পারে, হাবিবুর রহমান ক্ষমতার অপব্যবহার করে জ্ঞাত আয়ের সঙ্গে অসঙ্গতিপূর্ণ ২ কোটি ৩২ হাজার ৫৪৮ টাকা সাত পয়সা অবৈধ সম্পদ অর্জন করেন। এ ছাড়া হিসাব বিবরণীতে তিনি ১ কোটি ৩৮ লাখ ১ হাজার ৮০২ টাকা ৫৭ পয়সা সম্পদ প্রদর্শন না করে  গোপন করেন।

এ ঘটনায় ২০০৭ সালের ৩ অক্টোবর রমনা থানায় মামলা করেন দুদকের সহকারী পরিচালক সৈয়দ আহমেদ। তদন্ত করে অভিযোগ প্রাথমিকভাবে প্রমাণিত হওয়ায় ২০০৮ সালের ২০ এপ্রিল অভিযোগপত্র (চার্জশিট) দেওয়া হয়। একই বছরের ১৪ মে অভিযোগ গঠন করে আদালত। মামলা চলাকালে ২৫ জন সাক্ষীর মধ্যে ২১ জনের সাক্ষ্য নেওয়া হয়।

মন্তব্য