kalerkantho


অভিযোগ গঠন বাতিল চেয়ে তারেক সাঈদের আবেদন খারিজ

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২২ মার্চ, ২০১৬ ১২:২৬



অভিযোগ গঠন বাতিল চেয়ে তারেক সাঈদের আবেদন খারিজ

নারয়ণগঞ্জের সাত খুন মামলার অভিযোগ গঠন বাতিল চেয়ে র‌্যাবের চাকরিচ্যুত কর্মকর্তা তারেক সাঈদের আবেদন উত্থাপিত হয়নি মর্মে খারিজ করে দিয়েছেন হাইকোর্ট। মঙ্গলবার বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি আমীর হোসেনের ডিভিশন বেঞ্চ এই আদেশ দেন। বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম বলেন, অভিযোগে প্রাথমিক সত্যতা পাওয়ায় বিচারিক আদালত এই মামলায় আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করেছে। এই আসামি মামলার অপহরণ ও হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত ছিলেন কি না তা তা সাক্ষ্য প্রমাণের মধ্য দিয়েই বেরিয়ে আসবে। এখানে বসে বিষয়টি পর্যালোচনা করার সুযোগ নেই।
 
তিনি বলেন, এই মামলার সাক্ষ্যগ্রহণ বিচারিক আদালতে শুরু হয়ে গেছে। ফলে এই পর্যায়ে অভিযোগ গঠন আদেশ বাতিল চেয়ে যে আবেদন করা হয়েছে তা গ্রহণের সুযোগ নেই। যদি বিচারিক আদালতের বিচারের এখতিয়ার নিয়ে প্রশ্ন উত্থাপিত হতো তাহলে আমরা বিষয়টি বিবেচনা করতে পারতাম। এরপর আদালত তারেক সাইদের আইনজীবী গোলাম কিবরিয়াকে বলেন, আপনার শুনানিতে আমরা সন্তুষ্ট নই। আদেশ নেবেন নাকি নট প্রেসড করবেন। পরে গোলাম কিবরিয়া নট প্রেসড করবেন বলে আদালতে অবহিত করলে হাইকোর্টে আবেদনটি উত্থাপিত হয়নি মর্মে খারিজ করে দেয়।
 
নারায়ণগঞ্জের সাত খুনের ঘটনায় দুটি মামলা দায়ের করা হয়। প্রথম মামলাটি ২০১৪ সালের ২৭ এপ্রিল দায়ের করেন নিহত কাউন্সিলর নজরুল ইসলামের স্ত্রী সেলিনা ইসলাম। একই বছরের ৭ মে দ্বিতীয় মামলাটি করেন ওই ঘটনায় নিহত আইনজীবী চন্দন সরকারের জামাতা বিজয় কুমার পাল। সেলিনা ইসলামের মামলায় গত ফেব্রুয়ারি মাসে অভিযোগ গঠন করেন নারায়ণগঞ্জের জেলা ও দায়রা জজ। ওই অভিযোগ গঠন আদেশ বাতিল চেয়ে হাইকোর্টে আবেদন করেন তারেক সাঈদ।

আবেদনের পক্ষে আইনজীবী গোলাম কিবরিয়া ও রাষ্ট্রপক্ষে ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল শেখ এ কে এম মনিরুজ্জামান কবির শুনানি করেন। শুনানি শেষে মঙ্গলবার আদেশের জন্য দিন ধার্য করে দেয় আদালত। এর আগে বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিমের নেতৃত্বাধীন ডিভিশন বেঞ্চ ওই খুনের ঘটনায় করা দ্বিতীয় মামলা বাতিল চেয়ে তারেক সাঈদের একটি আবেদন খারিজ করে দেন।

 


মন্তব্য