kalerkantho

দ্বিতীয় রাজধানী প্রতিদিন

সীতাকুণ্ডে বোমা উদ্ধার, এলাকায় আতঙ্ক

সীতাকুণ্ড (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি   

১৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ২২:০৩



সীতাকুণ্ডে বোমা উদ্ধার, এলাকায় আতঙ্ক

চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে একটি বাড়ির সামনে বোমা রেখে যাওয়ার ঘটনা ছড়িয়ে পড়লে এলাকাবাসীর মধ্যে চরম আতঙ্ক সৃষ্টি হয়। খবর পেয়ে থানা পুলিশের উর্দ্ধতন কর্মকর্তারা সেখানে ছুটে যান। পরে বোম ডিসপোজাল ইউনিটকে খবর দিলে তারা এসে বোমাটি নিষ্ক্রিয় করে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, বুধবার সকাল আনুমানিক ১১ টার দিকে সীতাকুণ্ড পৌরসদরের ৪নং ওয়ার্ডের ভোলাগিরি তাঁতীবাড়ি রাস্তার মুখে কে বা কারা একটি প্যাকেট মোড়ানো বোমা রেখে যায়। বোমাটিতে একটি লাইট জ্বলজ্বল করছিলো। খবর পেয়ে স্থানীয় পৌরকাউন্সিলর হারাধন চৌধুরী বাবু সেখানে উপস্থিত হয়ে পুলিশকে জানালে চট্টগ্রাম উত্তরের অ্যাডিশনাল এসপি মশিউদ্দৌলা রেজা, সীতাকুণ্ডের সার্কেল অ্যাডিশনাল এসপি শম্পা রানী, ওসি মো. দেলওয়ার হোসেন, ওসি অপারেশন মো. জাব্বারুল ইসলাম, ওসি (ইন্টিলিজেন্স) সুমন বণিকসহ বিভিন্ন কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে ছুটে যান। এ সময় তারা ঐ সড়ক দিয়ে পথচারীদের চলাচল বন্ধ করে দেন।

পরে তারা চট্টগ্রামের বোম ডিসপোজাল ইউনিট কাউন্টার টেরোরিজমকে খবর দিলে ইউনিট ইনচার্জ রাজেশ বড়ুয়ার নেতৃত্বে একটি বোমা নিষ্ক্রিয়কারী দল বেলা ২টায় সেটি নিষ্ক্রিয় করেন। বোমাটি নিষ্ক্রিয়করণের সময় সেটি বিকট শব্দে বিষ্ফোরিত হয়।

ভোলাগিরি এলাকার বাসিন্দা মো. একরাম হোসেন বলেন, এ নিয়ে এলাকায় এখনো আতঙ্ক বিরাজ করছে। আগামী ৪ মার্চ শুরু হচ্ছে সীতাকুণ্ড মহাতীর্থে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের বৃহৎ ধর্মীয় অনুষ্ঠান শিব চতুর্দশী মেলা। এ মেলায় দেশ বিদেশের ১০ লক্ষাধিক ভক্তের আগমন হয়। এ মেলাটিতে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির লক্ষে কেউ এমন করতে পারে।

ঐ এলাকার ওয়ার্ড কাউন্সিলর মেলা কমিটির সাবেক সম্পাদক হারাধন চৌধুরী বাবু বলেন, আসন্ন মেলা নিয়ে হিন্দু সম্প্রদায়ের লোকজন ব্যস্ত রয়েছে। এ অবস্থায় আতঙ্ক ছড়ানোর জন্যই কেউ এমন করেছে বলে মনে হচ্ছে।

বোম ডিসপোজাল ইউনিটের প্রধান রাজেশ বড়ুয়া বলেন, ফেদারের বাক্স আকৃতির একটি প্যাকেটে মোড়ানো এটি একটি শব্দ বোমা। এর ভেতরে ক্ষতিকারক স্প্রিন্টার ছিলো না। তবে যারা রেখেছিলো তারা এটি ফাটানোর জন্য সার্কিটে সংযোগও দিয়েছিলো। তবে সংযোগ যথাযথ স্থাপন না হওয়ায় বিষ্ফোরিত হয়নি। আমরা সেটি নিস্ক্রিয় করেছি।

সীতাকুণ্ড থানার ওসি মো. দেলওয়ার ও ওসি (অপারেশন) জাব্বারুল ইসলাম বলেন, আমরা বেলা ১১টার দিকে খবর পেয়ে সেখানে ছুটে যাই। আসন্ন শিবচতুর্দশী মেলাকে ঘিরে কেউ এসব অপচেষ্টা করছে কিনাও তাও বুঝতে পারছি না। বিষয়টি গুরুত্বের সাথে দেখা হচ্ছে।



মন্তব্য