kalerkantho

দ্বিতীয় রাজধানী প্রতিদিন

চট্টগ্রামে উন্নয়ন মেলায় উপচেপড়া ভিড়

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম   

১৩ জানুয়ারি, ২০১৮ ০৩:০৭



চট্টগ্রামে উন্নয়ন মেলায় উপচেপড়া ভিড়

উন্নয়ন মেলার দ্বিতীয় দিনে চট্টগ্রামে বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষের ভিড় ছিল উপচে পড়া। সরকারি ছুটির দিনে শুক্রবার সরকারের নানা উন্নয়ন কার্যক্রম দেখতে মানুষ ভিড় জমান বিভিন্ন স্টলে।

অনুষ্ঠানের মূল বক্তা চট্টগ্রাম বিভাগের পরিচালক (স্থানীয় সরকার) দীপক চক্রবর্তী বলেন, 'প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার ২০২১ সালে দেশকে মধ্যম আয়ে উন্নীতকরণ, ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণ ও ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত রাষ্ট্র গড়তে একের পর এক প্রকল্প বাস্তবায়ন করে চলেছেন। দেশ অর্থনৈতিকভাবে এগিয়ে যাচ্ছে। আমরা ইতিমধ্যে নম্নি মধ্যম আয়ের দেশে উন্নীত হয়েছি।' তিনি সরকারের বহুমুখী উন্নয়নের অগ্রযাত্রা অব্যাহত রাখাসহ বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা বাস্তবায়নে সবাইকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান।

জেলা প্রশাসন কর্তৃক এম এ আজিজ স্টেডিয়ামসংলগ্ন জিমনেশিয়াম মাঠে আয়োজিত তিন দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলার দ্বিতীয় দিনে গতকাল শুক্রবার 'রূপকল্প ২০২১ ও ২০৪১ উন্নয়নের মহাসড়কে বাংলাদেশ' শীর্ষক মূল বক্তব্য উপস্থাপন করেন দীপক চক্রবর্তী। উন্নয়ন মেলার এবারের প্রতিপাদ্য বিষয় হচ্ছে 'উন্নয়নের রোল মডেল, শেখ হাসিনার বাংলাদেশ'।

জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের উপপরিচালক (স্থানীয় সরকার) মো. নায়েব আলীর সভাপতিত্বে ও বাকলিয়ার সহকারী কমিশনার (ভূমি) সাবরিনা মুস্তফার সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত উন্নয়ন মেলার অনুষ্ঠানে আলোচক ছিলেন চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষের সদস্য (প্রশাসন ও পরিকল্পনা) মো. জাফর আলম ও চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সামশুদ্দোহা। অনুষ্ঠানে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মাসুকুর রহমান সিকদার, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (এলএ) মো. মমিনুর রশিদ, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) মো. হাবিবুর রহমান, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মাসহাদুল কবিরসহ বিভাগীয় ও জেলা প্রশাসনের পদস্থ কর্মকর্তা, বিমান, নেৌ ও সেনাবাহিনীর কর্মকর্তা, সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের প্রধান এবং বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।

শেষে বিকেল ৫টায় উন্নয়ন মেলার মঞ্চে জেলা শিল্পকলা একাডেমির শিক্ষার্থীরা দলীয় নৃত্য, একক সংগীত ও দলীয় সংগীত পরিবেশন করে। উন্নয়ন মেলার দ্বিতীয় দিনে সকাল ১০টা থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত দর্শনার্থীদের উপচে পড়া ভিড় ছিল। মেলায় সরকারি-বেসরকারি দেড় শতাধিক স্টল তাদের উন্নয়ন কর্মকাণ্ড দর্শনার্থীদের মাঝে তুলে ধরা হয়।


মন্তব্য