kalerkantho

দ্বিতীয় রাজধানী প্রতিদিন

কক্সবাজারে প্রকাশ্যে অস্ত্র উচিয়ে যুবক অপহরণ

নিজস্ব প্রতিবেদক, কক্সবাজার   

৩১ ডিসেম্বর, ২০১৭ ০৪:৩৫



কক্সবাজারে প্রকাশ্যে অস্ত্র উচিয়ে যুবক অপহরণ

ছবি : কালের কণ্ঠ

নিজের প্রতিষ্ঠিত স্কুলের ক্ষুদে শিক্ষার্থীদের জন্য বই আনতে গিয়ে প্রকাশ্যে দিবালোকে অপহরণের শিকার হলেন, ঝিলংজার দক্ষিণ ডিককুল জামে মসজিদ পরিচালনা কমিটির সভাপতি ও দক্ষিণ ডিককুল শিশু কল্যাণ শিক্ষা নিকেতনের প্রতিষ্ঠাতা আব্দুস সালাম (৩৫)। গতকাল শনিবার কক্সবাজার কেন্দ্রীয় বাস-টার্মিনাল সংলগ্ন লারপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় গেইটে উেপতে থাকা অস্ত্রধারী অপহরণকারীরা সালামের উপর হামলে পড়ে। 

দীর্ঘ দেড় ঘন্টা পর শত শত গ্রামবাসী কলাতলী সংলগ্ন গমপানির ছড়ার গহীন অরণ্যে অপহরণকারীদের ডেরায় অভিযান চালিয়ে অপহৃত সালামকে মুমূর্ষু অবস্থায় উদ্ধার করে। তাকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় কক্সবাজার সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। 

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্র ও প্রাপ্ত তথ্যে জানা যায়, সমাজসেবক আব্দুস সালাম তার প্রতিষ্ঠিত শিশু শিক্ষা নিকেতনের জন্য সরকারের সরবরাহকৃত নতুন বই আনতে শনিবার সকাল ১০টায় লারপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে যান। বই ব্যবস্থা করে নিজের মোটর সাইকেল যোগে ফেরার পথে উেপতে থাকা ১২-১৫ জন অস্ত্রধারী তাকে ঘিরে ধরে হকি স্টিক দিয়ে বেপরোয়া পেটাতে থাকে। 

এসময় সালাম অজ্ঞান হয়ে পড়লে শত শত মানুষের সামনে সন্ত্রাসীরা অস্ত্র উঁচিয়ে তাকে কাঁধে তোলে দক্ষিণ পশ্চিমের গহীন অরণ্যে চলে যায়। খবর পেয়ে দক্ষিণ ডিককুলের শত শত গ্রামবাসী লাঠিসোটা নিয়ে অপহরণকারীদের গমপানির ছড়ার ডেরায় হানা দেয়। অবস্থা বেগতিক দেখে অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীরা সালামকে বেলা ১২.৩০টায় মুমূর্ষু অবস্থায় ফেলে সটকে পড়ে। 

পরে গ্রামবাসী সালামকে গুরুত্বর আহত অবস্থায় উদ্ধার করে মিছিল সহকারে কক্সবাজার সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার কার্যালয়ে নিয়ে যান। এসময় সদর ইউএনও নোমান হোসেন অপহরণকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার আশ্বাস দিয়ে অপহৃতকে হাসপাতালে পাঠাতে নির্দেশ দেন। 

এদিকে আহত আব্দুস সালামের বাবা বৃদ্ধ জাফর আলম জানান, তার ছেলে লারপাড়ার অস্ত্রধারী ডাকাত, ইয়াবা ও মাদক ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে সামাজিক দায়বদ্ধতা থেকে অবস্থান নেয়ায় তার ছেলে প্রকাশ্যে এই অপহরণ ও হামলার শিকার হয়েছেন। তিনি এই ঘটনার জন্য লারপাড়ার ইয়াবা গডফাদার এবং বিএনপি ক্যাডার সাইফুল বাহিনীকে দায়ী করেছেন।   

 



মন্তব্য