kalerkantho

দ্বিতীয় রাজধানী প্রতিদিন

দুই ঘণ্টায় শেষ তিন ট্রেনের টিকেট

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২২ আগস্ট, ২০১৭ ১৩:১৫



দুই ঘণ্টায় শেষ তিন ট্রেনের টিকেট

পবিত্র ঈদুল আজহা উপলক্ষে ট্রেনের অগ্রিম টিকেট বিক্রির শেষদিনে যাত্রীদের উপচেপড়া ভিড় দেখা গেছে। লম্বা লাইনে ঘণ্টার পর ঘণ্টা দাঁড়িয়ে টিকেট নিতে হচ্ছে যাত্রীদের।

আজ মঙ্গলবার সকাল আটটা থেকে ৩১ আগস্টের টিকেট বিক্রি করা হচ্ছে।   এদিকে টিকেট বিক্রি শুরুর দুই ঘণ্টার মধ্যেই শেষ হয়ে গেছে তিনটি ট্রেনের টিকেট।   সকাল ১০টার মধ্যেই বিজয় এক্সপ্রেস, সোনার বাংলা ও তূর্ণা নিশিতা ট্রেনের সব টিকেট বিক্রি হয়ে যায়। অন্যান্য ট্রেনগুলোর অধিকাংশ টিকেটও বিক্রি হয়ে গেছে।   টিকেট থাকা সাপেক্ষে যাত্রীরা তা সংগ্রহ করতে পারবেন।

রেলওয়ে সূত্র জানায়, ১৮ আগস্ট ২৭, ১৯ আগস্ট ২৮, ২০ আগস্ট ২৯ আগস্ট, ২১ আগস্ট ৩০ আগস্টের টিকেট দেওয়া হয়েছে।   ফিরতি টিকিট বিক্রি শুরু হবে ২৫ আগস্ট থেকে। পরিবহন বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, সুবর্ণ এক্সপ্রেস প্রতিদিন সকাল সাতটায়, মহানগর গোধূলী বিকেল ৩টায়, চট্টলা এক্সপ্রেস সকাল সোয়া ৮টায়, মহানগর এক্সপ্রেস বেলা সাড়ে ১২টায়, সোনার বাংলা বিকেল ৫টায় এবং তূর্ণা এক্সপ্রেস রাত ১১টায় ঢাকার উদ্দেশ্যে চট্টগ্রাম স্টেশন ছেড়ে যাবে।

চট্টগ্রাম স্টেশনের ম্যানেজার আবুল কালাম আজাদ বলেন, শেষদিনে টিকেটের চাহিদা অতিরিক্ত বেড়েছে।

১ সেপ্টেম্বর থেকে ঈদের ছুটি শুরু হওয়ায় ৩১ আগস্ট সবাই বাড়িতে যাবেন। তাই এদিনের টিকেটের চাহিদা সবচেয়ে বেশি। টিকেটের জন্য যাত্রীরা রীতিমতো হুমড়ি খেয়ে পড়েছেন। শেষদিনের জন্য স্টেশনে ৭২০০ টিকেট বরাদ্দ রেখেছিলাম।   এরমধ্যে টিকেট বিক্রি শুরুর দুই ঘণ্টার মধ্যেই বিজয় এক্সপ্রেস, সোনার বাংলা ও তূর্ণা নিশিতার সব টিকেট শেষ হয়ে গেছে। অন্যান্য ট্রেনের কিছু টিকেট বাকি থাকলেও সেগুলো শেষ হওয়ার পথে।

পাহাড়িকা সকাল সোয়া ৯টায়, উদয়ন এক্সপ্রেস রাত ৯টা ৪৫ মিনিটে সিলেটের উদ্দেশ্যে, মেঘনা এক্সপ্রেস বিকেল সোয়া পাঁচটায় চাঁদপুরের উদ্দেশ্যে এবং বিজয় এক্সপ্রেস সকাল ৭টা ২০ মিনিটে ময়মনসিংহের উদ্দেশ্যে চট্টগ্রাম ছেড়ে যাবে। কর্ণফুলী এক্সপ্রেস সকাল ১০টায় ও ঢাকা মেইল এক্সপ্রেস রাত সাড়ে ১০টায় ঢাকার উদ্দেশ্যে, সাগরিকা এক্সপ্রেস সকাল সাড়ে ৭টায় চাঁদপুরের উদ্দেশ্যে ময়মনসিংহ এক্সপ্রেস বিকেল সাড়ে ৩টায় বাহাদুরাবাদের উদ্দেশ্যে ও জালালাবাদ এক্সপ্রেস রাত সাড়ে ৯টায় সিলেটের উদ্দেশ্যে চট্টগ্রাম স্টেশন ছেড়ে যাবে।

 


মন্তব্য