logo
আপডেট : ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ২৩:৩৭
গেইম
নতুন বছরে নতুন করে স্ট্রিট ফাইটার

নতুন বছরে নতুন করে স্ট্রিট ফাইটার

 

‘হিয়ার কামস আ নিউ চ্যালেঞ্জার’ কথাগুলো একসময় নাচন তুলত রক্তে। ‘গেইম ওভার’ শুনতে হতো একরাশ হতাশা নিয়ে। কয়েন বক্স ভিডিও গেইম মেশিনে স্ট্রিট ফাইটার খেলা ছিল এক উত্তেজনার নাম। নব্বইয়ের দশকের মাঝামাঝি সময়, বাংলাদেশের শিশু-কিশোরদের কাছে এক অদ্ভুত মায়াবী জগৎ নিয়ে হাজির হয়েছিল এই ভিডিও গেইমসের দোকানগুলো। বেকার সমস্যার সমাধানে কতটা কার্যকর ছিল তা জানা নেই, তবে পাড়ার মোড়ে মোড়ে এখন যেমন স্ট্রিট ফুডের কার্ট বা কফি শপ, একটা সময় ভিডিও গেইমসের দোকানও ছিল তেমনি।

সেই সময়ে স্ট্রিট ফাইটার ছিল তুমুল জনপ্রিয় এক গেইম। এক কয়েনে স্ট্রিট ফাইটার গেইম ওভার করতে পারাটাকে দেখা হতো বিরাট কৃতিত্ব হিসেবে। ‘মনো-ই মনো’ বা মুখোমুখি দুজনের লড়াইতে সেই মানুষটির সঙ্গে কেউ সহজে লড়তে চাইত না। এক, দুই বা পাঁচ টাকায় আজকাল কী-ই বা হয়! অথচ একটা সময় কত মহার্ঘই না ছিল তা। থ্রিজি মোবাইলে অনলাইনে গেইম খেলা প্রজন্ম কি বুঝবে সেই রোমাঞ্চের মানে।

স্মৃতিচারণা অনেক হলো, এবার মোদ্দা কথা। স্ট্রিট ফাইটার ফাইভ পিসি ও পিএস ফোরে এসেছিল বছর দুই আগেই। কিন্তু ঠিক মন ভরাতে পারেনি। তাই তো ক্যাপকম নতুন করে বাজারে এনেছে স্ট্রিট ফাইটার ফাইভ : আর্কেড এডিশন। নতুন সব চরিত্র, আর নতুন সব ‘মুভ’ ও নতুন নতুন কস্টিউম। ‘আর্কেড মোড’ ও ‘এক্সট্রা ব্যাটল মোড’ও যুক্ত হয়েছে নতুন সংস্করণে। তবে সবচেয়ে বড় সংযুক্তিটা হচ্ছে ‘ভি ট্রিগার’। মরটাল কমব্যাটের এক্স-রে মুভ কিংবা কিং অব ফাইটার্সের সুপার পাওয়ারের মতোই ভি-গজ পূর্ণ হলে ফাইটার পাবে বিশেষ এক মার, যেটা কায়দামতো লাগাতে পারলে অনেকটাই শেষ করে ফেলা যাবে প্রতিপক্ষের লাইফ।

এ ছাড়া আছে টিম ব্যাটল, যেখানে পাঁচজনের পর্যন্ত দল নিয়ে অন্য দলের সঙ্গে লড়াই। আরো আছে ক্লাসিক এডিশনের কস্টিউম।

ফাইট মানি দিয়ে আনলক করা যাবে স্ট্রিট ফাইটারের প্রথম সংস্করণ থেকে পঞ্চম সংস্করণ পর্যন্ত সব যুগেরই কস্টিউম। রাইয়ুকে আপনি কিভাবে দেখতে চান, সেটা তাই আপনারই ইচ্ছাধীন!

ফাইটিং গেইমের জগতে স্ট্রিট ফাইটার ফাইভের আর্কেড এডিশন এনেছে নতুন মাত্রা। নতুন সব চরিত্র, মুভস আর ব্যাকগ্রাউন্ডের সঙ্গে উপভোগ করুন সেই পুরনো রোমাঞ্চ।

পাড়ার ভিডিও গেইমের দোকানগুলো নেই তাতে কি, ঘরে পিসি তো আছে!

 

খেলতে হলে যা যা লাগবে

ওএস : উইন্ডোজ ৭-৬৪ বিট

প্রসেসর : ইন্টেল কোর আই থ্রি ৪১৬০-৩.৬০ গিগাহার্টজ

র‌্যাম : ৬ গিগাবাইট

গ্রাফিকস কার্ড : জিইফোর্স জিটিএক্স ৪৮০,৫৭০,৬৭০

ডিরেক্ট এক্স : ১১।

সম্পাদক : ইমদাদুল হক মিলন,
নির্বাহী সম্পাদক : মোস্তফা কামাল,
ইস্ট ওয়েস্ট মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের পক্ষে ময়নাল হোসেন চৌধুরী কর্তৃক প্লট-৩৭১/এ, ব্লক-ডি, বসুন্ধরা, বারিধারা থেকে প্রকাশিত এবং প্লট-সি/৫২, ব্লক-কে, বসুন্ধরা, খিলক্ষেত, বাড্ডা, ঢাকা-১২২৯ থেকে মুদ্রিত।
বার্তা ও সম্পাদকীয় বিভাগ : বসুন্ধরা আবাসিক এলাকা, প্লট-৩৭১/এ, ব্লক-ডি, বারিধারা, ঢাকা-১২২৯। পিএবিএক্স : ০২৮৪০২৩৭২-৭৫, ফ্যাক্স : ৮৪০২৩৬৮-৯, বিজ্ঞাপন ফোন : ৮১৫৮০১২, ৮৪০২০৪৮, বিজ্ঞাপন ফ্যাক্স : ৮১৫৮৮৬২, ৮৪০২০৪৭। E-mail : info@kalerkantho.com