logo
আপডেট : ৩ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:৫৮
২৬০০ ফুট উঁচু পাহাড়চূড়ায় সুইমিং পুল


২৬০০ ফুট উঁচু

পাহাড়চূড়ায়

সুইমিং পুল

দেশের অন্যতম অসাধারণ পর্যটন রিসোর্ট ‘সাইরু।’ প্রকৃতির কোলে দৃষ্টিনন্দন স্থাপনা সাজানোর পর সাইরু কর্তৃপক্ষ আরো একটি অসাধারণ সৃষ্টি করতে যাচ্ছে সবার অগোচরে। এই রিসোর্টের প্রায় সর্বোচ্চ পাহাড়চূড়ায় নির্মিত হতে যাচ্ছে শৈল্পিক সুইমিং পুল। কর্তৃপক্ষ বলেছে, এর উচ্চতা ২৬০০ ফুট। রিসোর্টের চেয়ারম্যান রাংলাই ম্রোর দাবি, এই সুইমিং পুল স্থাপিত হচ্ছে দেশের সবচেয়ে উঁচু স্থানে। অর্থাৎ ‘টপেস্ট সুইমিং পুল’ হচ্ছে ‘সাইরু’ রিসোর্টে।

বান্দরবান শহর থেকে ১৯ কিলোমিটার দূরে ধাপে ধাপে উপরে উঠে যাওয়া পাহাড়ের গা ঘেঁষে ঘেঁষে ইট-কাঠের নান্দনিক কয়েকটি ঘর এবং চমৎকার একটি রেস্টুরেন্ট-কাম-কনফারেন্স হল নিয়ে সাইরু রিসোর্ট। বান্দরবান-থানচি সড়ক থেকে সিঁড়ি বেয়ে উঠেই বিশাল কনফারেন্স হল। এরপর পাকা সড়কে ব্যাটারিচালিত হালকা যানে চড়ে কিংবা পায়ে হাঁটা পথের দুধারে সারি সারি কটেজ। এরও কিছুটা উপরে ২/৩ একরের পাহাড় চূড়ায় নির্মিত হচ্ছে ওই সুইমিং পুল। পাহাড়ের এক পাশে পানির আধার, অপর পাশে ব্যালকনির মতো ছাদের নিচে বসার স্থান। এই সুইমিং পুল থেকে সিঁড়ি বেয়ে আরো কিছুটা উঠলে লম্বা লাউঞ্জ। তাতে ছাদ দেয়া। নিচে ছোটখাটো কনফারেন্স আর ছাদের উপর হতে পারে আড্ডাও। শিশুরা যাতে নিরাপদে সব খানে যেতে পারে, আছে তার ব্যবস্থাও।

রাংলাই ম্রো জানালেন, ২০০ থেকে ২৫০ অতিথি একসঙ্গে এই সুইমিং পুলের বহুমুখী সেবা নিতে পারবেন।

খানিকটা ঘুরে দেখা গেল,

রড-সিমেন্ট-কংক্রিটের (আরসিসি) পিলার এবং পাটাতনের উপর দাঁড়িয়ে আছে সুইমিং পুলটি। নিচের অংশটিকে ব্যবহার করা হয়েছে মোটর,

জেনারেটর, বিদ্যুৎ নিয়ন্ত্রণ কক্ষ, পানি নিষ্কাশনের ড্রেন ও পাইপলাইন সংযোজন কাজে। সুইমিং পুল সংশ্লিষ্ট

কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বসার স্থানও সেখানে।

ম্যানেজার অপারেশন ওয়াহিদুজ্জামান জানালেন, সুইমিং পুলের নিরাপত্তা বিধানে সর্বোচ্চ ব্যবস্থা নিশ্চিত করা

হয়েছে। ইতোমধ্যে পরীক্ষামূলকভাবে চালু করে নিরাপত্তার বিষয়টি পরখ করে নেওয়া হয়েছে। শিগগিরই দেশের সবচেয়ে উঁচুতে স্থাপিত সুইমিং পুল গেস্টদের জন্যে খুলে দেওয়া হবে।

বান্দরবানে আছে দেশের সবচেয়ে উচ্চতায় মেঘের রাজ্যের উপর দিয়ে ছুটে চল

থানচি-আলীকদম সড়ক পথ। দেশের সবচেয়ে উঁচু পাহাড় চূড়া তাজিন ডং, ক্রেক্রাডং, সর্বোচ্চ জলাশয় বগালেক এবং আকাশছোঁয়া

পর্যটন কেন্দ্র নীলগিরি।

সাইরু এবং এর নান্দনিক সুইমিং পুল এসব রেকর্ডের সাথে নতুন সংযোজিত হয়ে পর্যটন সম্ভাবনাকে আরো বিকশিত করতে পারবে বলে মনে করছেন উদ্যোক্তারা।

 

সম্পাদক : ইমদাদুল হক মিলন,
নির্বাহী সম্পাদক : মোস্তফা কামাল,
ইস্ট ওয়েস্ট মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের পক্ষে ময়নাল হোসেন চৌধুরী কর্তৃক প্লট-৩৭১/এ, ব্লক-ডি, বসুন্ধরা, বারিধারা থেকে প্রকাশিত এবং প্লট-সি/৫২, ব্লক-কে, বসুন্ধরা, খিলক্ষেত, বাড্ডা, ঢাকা-১২২৯ থেকে মুদ্রিত।
বার্তা ও সম্পাদকীয় বিভাগ : বসুন্ধরা আবাসিক এলাকা, প্লট-৩৭১/এ, ব্লক-ডি, বারিধারা, ঢাকা-১২২৯। পিএবিএক্স : ০২৮৪০২৩৭২-৭৫, ফ্যাক্স : ৮৪০২৩৬৮-৯, বিজ্ঞাপন ফোন : ৮১৫৮০১২, ৮৪০২০৪৮, বিজ্ঞাপন ফ্যাক্স : ৮১৫৮৮৬২, ৮৪০২০৪৭। E-mail : info@kalerkantho.com