logo
আপডেট : ১৭ নভেম্বর, ২০১৭ ২৩:২৯
ঢাকায় অস্কারজয়ী
টিলডা সুইনটন

টিলডা সুইনটন

বিশ্ব তাঁকে চেনে অস্কারজয়ী অভিনেত্রী হিসেবে। জিতেছেন বাফটা, পেয়েছেন গোল্ডেন গ্লোবের মনোনয়নও। এত প্রাপ্তির পরও টিলডা সুইনটন প্রথম জীবনে লেখকই হতে চেয়েছিলেন। আর সে কথাই জানালেন ‘ঢাকা লিট ফেস্ট ২০১৭’-তে এসে। গতকাল তাঁর কথা শোনার জন্য বাংলা একাডেমির মিলনায়তনে উপস্থিত হয়েছিল প্রচুর দর্শক। আলোচনা অনুষ্ঠানে ‘মাইকেল ক্লেটন’ অভিনেত্রী কথা বলেন সাহিত্য, চলচ্চিত্র, শিক্ষাসহ নানা বিষয়ে। প্রায় ১৫ বছর পর সম্প্রতি আবার লেখালেখি শুরু করেছেন। এ প্রসঙ্গে ‘কর্নিকলস অব নার্নিয়া’ অভিনেত্রী বলেন, ‘১৫ বছর ধরে একটি শব্দও লিখিনি। এতে চিন্তার ধারাবাহিকতা নষ্ট হয়েছে। আমার হাতের লেখাও খুব একটা ভালো না। ল্যাপটপের কারণে আবার ফিরতে পেরেছি। টাইপিংয়ে পটু নই, তাই এক আঙুলেই টাইপ করে যাই। সর্বশেষ লিখেছি বাবাকে নিয়ে স্মৃতিকথা।’ সেই স্মৃতিকথার অংশবিশেষ পাঠ করেও শোনান টিলডা।

উপস্থাপকের কথার সূত্র ধরে জানা গেল, এবারই প্রথম ঢাকায় এসেছেন টিলডা। তবে তাঁর এক পূর্বপুরুষের সঙ্গে ঢাকার যোগাযোগ বেশ পুরনো। ১৭৫৭ সালের পলাশীর যুদ্ধের পর টিলডার সেই পূর্বপুরুষ আর্চিবোল্ড সুইনটন এসেছিলেন ঢাকায় ইস্ট ইন্ডিয়া কম্পানির সেনা কর্মকর্তা হিসেবে। তবে বিস্তারিত আলাপে গেলেন না ৫৭ বছর বয়সী এই অভিনেত্রী, ‘ভয়ংকর ইতিহাসে ফিরে না যাওয়াই ভালো’, বলে পাশ কাটিয়ে গেলেন।

উৎসবের আয়োজনের ফাঁকে ঢাকার ভক্তদের সঙ্গে সেলফি তুলেই কাটিয়েছেন সময়টা। আর আয়োজকদের কাছে বাঙালি খাবারের আবদার জানিয়েছেন এবং খেয়েছেনও পেট পুরে।

টিলডা ঢাকায় এসেছেন ১৫ নভেম্বর। আজ ‘ঢাকা লিট ফেস্ট’-এর শেষ দিন। আয়োজক সূত্রে জানা গেছে, আর দু-এক দিন পরই ঢাকা ছাড়বেন তিনি।

সম্পাদক : ইমদাদুল হক মিলন,
নির্বাহী সম্পাদক : মোস্তফা কামাল,
ইস্ট ওয়েস্ট মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের পক্ষে ময়নাল হোসেন চৌধুরী কর্তৃক প্লট-৩৭১/এ, ব্লক-ডি, বসুন্ধরা, বারিধারা থেকে প্রকাশিত এবং প্লট-সি/৫২, ব্লক-কে, বসুন্ধরা, খিলক্ষেত, বাড্ডা, ঢাকা-১২২৯ থেকে মুদ্রিত।
বার্তা ও সম্পাদকীয় বিভাগ : বসুন্ধরা আবাসিক এলাকা, প্লট-৩৭১/এ, ব্লক-ডি, বারিধারা, ঢাকা-১২২৯। পিএবিএক্স : ০২৮৪০২৩৭২-৭৫, ফ্যাক্স : ৮৪০২৩৬৮-৯, বিজ্ঞাপন ফোন : ৮১৫৮০১২, ৮৪০২০৪৮, বিজ্ঞাপন ফ্যাক্স : ৮১৫৮৮৬২, ৮৪০২০৪৭। E-mail : info@kalerkantho.com