kalerkantho


তাঁদের সুরে ঈদ

‘রমজানের ওই রোজার শেষে এলো খুশির ঈদ’ ছাড়া ঈদ নিয়ে তেমন কোনো গান শোনা যায় না। এবার ঈদ সামনে রেখে তৈরি করা হয়েছে কয়েকটি গান। সেগুলো নিয়ে লিখেছেন রবিউল ইসলাম জীবন

৭ জুন, ২০১৮ ০০:০০



তাঁদের সুরে ঈদ

আসমানেতে চাঁদ উঠেছে

‘ওই দেখো, দেখো ওই আসমানেতে চাঁদ উঠেছে’—ঈদ নিয়ে শেখ সাদী খানের করা গান। একটি টিভি চ্যানেলে প্রচারের পাশাপাশি গানটির ভিডিও প্রকাশ করা হবে ইউটিউবে। কথা ও পরিকল্পনা শহীদ রহমানের। কণ্ঠ দিয়েছেন এই প্রজন্মের ১০ শিল্পী—পরান, ইউসুফ, অপু, মুগ্ধ, ঋতুরাজ, চম্পা বণিক, স্বরলিপি, নন্দিতা, প্রিয়াংকা বিশ্বাস ও সুস্মিতা। ভিডিওটির শুটিং হয়েছে উত্তরায়। শেখ সাদী খান বলেন, ‘রমজানের ওই রোজার শেষে এলো খুশির ঈদ ছাড়া ঈদ নিয়ে আমাদের দেশে উল্লেখযোগ্য কোনো গান নেই। সেই ভাবনা থেকেই গানটির পরিকল্পনা করেন গীতিকার। অনেক সময় নিয়ে কাজটি করেছি। কথা-সুর-সংগীতে ঈদের আনন্দ ও হাসিখুশির বিষয়টিকে ফুটিয়ে তোলার চেষ্টা করা হয়েছে। ভিডিওর আইডিয়াও আমার। আশা করি, শ্রোতাদের কাছ থেকে ভালো রেসপন্স পাব।’

 

ঈদের খুশিতে

৩০ মে বাংলাঢোলের ইউটিউব চ্যানেলে প্রকাশ করা হয়েছে কুমার বিশ্বজিতের ‘ঈদের খুশিতে’ গানের স্টুডিও ভার্সন ভিডিও। লিটন অধিকারী রিন্টুর কথায় সুর ও সংগীত করেছেন সুমন কল্যাণ। গানটির মুখ ‘আজ খুশিতে খুশিতে ঈদের হাসিতে হাসুক সবারই মন/মনের ব্যথা, বুকের কথা ভুলে যাক প্রতিজন/ঈদের আনন্দে জীবনটা ছন্দে থাক না সারাক্ষণ’।

সুমন কল্যাণ বলেন, ‘জীবনে অনেক বিষয় নিয়ে গান করেছি। তবে ঈদ নিয়ে গান করার অনুভূতিটা সত্যিই অন্য রকম। কথা-সুর-সংগীত সব ক্ষেত্রেই আমরা চেষ্টা করেছি ঈদের অনুভূতিকে স্পর্শ করার। কাজটি করতে পেরে আমরা অনেক আনন্দিত। এবার শ্রোতারা আনন্দ পেলেই হয়।’

 

ঈদের আনন্দ

‘তারার বাগানে চাঁদ ফুটেছে ফুলের মতো করে/সবার মনে ছড়ালো সুবাস গ্রামে গঞ্জে শহরে/সবার জীবনে আসুক নতুন সকাল নতুন সাজে/খুশির এই বারতা যেন থাকে সবার মাঝে/চাঁদরাতে মুছে ফেলো যত অন্ধকার/ঈদের আনন্দে খোলে চাঁদ বন্ধ দ্বার’—বেলাল খানের ‘ঈদের আনন্দ’ গানের মুখ এটি। সুর করেছেন শিল্পী নিজেই। কথা লিখেছেন সোমেশ্বর অলি। সংগীতায়োজনে জে কে। বেলাল খান বলেন, ‘অনেক ইচ্ছা ছিল ঈদ নিয়ে একটি গান করার। কিছুদিন আগে গানটি করে রাখি। এবার সেই গান স্টুডিও ভার্সন ভিডিও করে বাংলাঢোলের ইউটিউব চ্যানেলে প্রকাশ করা হয়েছে। গানের কথায় ঈদ আনন্দের বিষয়গুলো তুলে ধরা হয়েছে। আশা করি, সবার ভালো লাগবে।’

 

আজ খুশিরই ঈদ

‘তোমাকেই খুঁজছে বাংলাদেশ’ প্রতিযোগিতা থেকে উঠে আসা অপু আমান তৈরি করেছেন ‘আজ খুশিরই ঈদ’। অপুর পাশাপাশি কণ্ঠ দিয়েছেন একই প্রতিযোগিতা থেকে আসা আরো তিন শিল্পী মুহিন, লিজা ও পুতুল। অপুর সুর-সংগীতে কথা লিখেছেন আনন্দ প্রিয়। গানটির মুখ ‘কি যে আনন্দ, কি যে আনন্দ/আজ খুশির জোয়ারে ভরে উঠল সুদিন/বাঁকা চাঁদেরও মৃদু জোছনায় জ্বলে নিভে আকাশটা করে মিটমিট/ আজ খুশিরই ঈদ, আজ খুশিরই ঈদ।’  অপু বলেন, ‘ঈদে মানুষের আনন্দের সীমা থাকে না। এই আনন্দ বাড়িয়ে দেওয়ার একটি বড় মাধ্যম হচ্ছে গান। তাই ভাবলাম ঈদ উত্সবের অনুভূতি নিয়ে একটি গান করি। পরিচিত যাদেরই শুনিয়েছি সবাই খুব পছন্দ করেছে। আমার ধারণা, শ্রোতাদেরও ভালো লাগবে।’ ঈদের আগে আগে গানটির ভিডিও প্রকাশ করা হবে ই-মিউজিকের ইউটিউব চ্যানেলে।



মন্তব্য