kalerkantho


ভুল সবই ভুল

হিটলার আণবিক বোমা প্রায় বানিয়ে ফেলেছিলেন

সবাই সত্যি জানে—এমন অনেক কথা পরে যাচাই করে দেখা গেছে সেগুলো মিথ্যা। লিখেছেন আসমা নুসরাত

১৬ মার্চ, ২০১৯ ০০:০০



হিটলার আণবিক বোমা প্রায় বানিয়ে ফেলেছিলেন

রটনাটা এমন ছিল যে আর কিছুদিন গেলেই দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের ইতিহাস নতুন করে লিখতে হতো। কারণ হিটলার আণবিক বোমা বলতে গেলে বানিয়েই ফেলেছিলেন। অথচ মিত্রবাহিনী জার্মান পদার্থবিজ্ঞানী ওয়ার্নার হাইজেনবার্গ ও তাঁর সহকর্মীদের জিজ্ঞাসাবাদ করে নিশ্চিত হয়েছিলেন আণবিক বোমা তৈরির ধারে-কাছেও যায়নি হিটলার বাহিনী। তবু রটনাটা ছিলই। পরে আবার তাতে হাওয়া দিয়েছিলেন বার্লিনের ঐতিহাসিক রেইনার কার্লশ।  তাঁর বই হিটলারস বম্বে তিনি লিখেছেন, ১৯৪৫ সালের মার্চ মাসে জার্মান পদার্থবিজ্ঞানী ও সামরিক বাহিনীর লোকেরা তিনটি আণবিক যুদ্ধাস্ত্রের সফল পরীক্ষা ঘটিয়েছিল। কার্লশ কয়েক বছর মহাফেজখানার দলিল-দস্তাবেজ ঘেঁটেছেন। হাইজেনবার্গের বক্তৃতার দুর্লভ পাণ্ডুলিপিও খুঁজে পেয়েছিলেন তিনি; কিন্তু সেটি তাঁকে তাঁর বক্তব্য পরিষ্কার করতে যথেষ্ট সমর্থন দেয়নি। তাই কার্লশকে অনুমাননির্ভর হতে হয়েছে অনেক ক্ষেত্রেই। সে কারণে গবেষকরা তাঁর লেখনীতে আস্থা রাখেননি। আরো নিশ্চিত হতে জার্মানির ফেডারেল অফিস ফর রেডিয়েশন প্রটেকশন সেখানকার মাটি সংগ্রহ করে, যেখানে (রুগেন দ্বীপ ও পূর্ব জার্মানির থুরিংগিয়া) আণবিক বোমার সফল পরীক্ষা করা হয়েছিল বলে দাবি করেছেন কার্লশ। মাটি পরীক্ষা করার পর ওই অফিসের জেরাল্ড ক্রিশনার বলেছেন, মাটিতে আমরা আণবিক বোমা বিস্ফোরণের কোনো নমুনা খুঁজে পাইনি।



মন্তব্য